fbpx
কলকাতাহেডলাইন

কলকাতায় বাড়ল ১৪ টি কন্টেনমেন্ট জোন! তালিকায় পুলিশ-প্রতিরক্ষা দফতরের ঠিকানা

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: শহরে উদ্বেগজনক ভাবে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। আর শহর তিলোত্তমা যেন এখন বন্দি বাঁশের ব্যারিকেডে। প্রতিদিনই শহর কলকাতায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যার হিসেবে বাড়ছে কনটেনমেন্ট জোনের পরিধি। সূত্রের খবর, নতুন আক্রান্তের হিসেবে শহরে কনটেনমেন্ট জোনের সংখ্যা ৩২৬ থেকে বেড়ে ৩৪০ টিতে দাঁড়িয়েছে। যার মধ্যে রয়েছে, কলকাতা পুলিশের আলিপুর বডিগার্ড লাইনস, প্রতিরক্ষা দফতরের দুই ঠিকানা গার্ডেনরিচ শিপবিল্ডার্স, খিদিরপুরে আইএনএস নেতাজি সুভাষের এক নম্বর বেস।

সূত্রের খবর, সোমবার পর্যন্ত ১৪ টি কন্টেনমেন্ট জোন বাড়ানো হয়েছে। উত্তর কলকাতা এবং মধ্য কলকাতায় কন্টেনমেন্ট জোনের সংখ্যা বেশি হলেও তালিকায় যোগ করা হয়েছে দক্ষিণ কলকাতার যাদবপুরের বিভিন্ন এলাকাকে। শনিবার রাতে আলিপুর বডিগার্ড লাইনে এক পুলিশকর্মীর করোনা পজিটিভ হওয়ার পর ওই এলাকা প্রাথমিক ভাবে সিল করে দেওয়া হয়। তারপরেই ওই এলাকাকে কনটেনমেন্ট জোনে ফেলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

আরও পড়ুন: বিজেপির মতো সোশ্যাল মিডিয়াতে ঝড় তুলতে চায় তৃণমূল

বন্দরে গার্ডেনরিচের রামনগরে গার্ডেনরিচ শিপবিল্ডার্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়র্স লিমিটেডের (জিআরএসই) অফিসকে ‘কনটেনমেন্ট জোন’-এর তালিকায় রাখা হয়েছে। জাহাজ নির্মাণকারী এই কেন্দ্রীয় সরকারি সংস্থায় মোতায়েন এক সিআইএসএফ জওয়ান করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বলে সূত্রের খবর। অন্যদিকে, খিদিরপুরে আইএনএস নেতাজি সুভাষের এক নম্বর বেসকেও কনটেনমেন্ট জোনের তালিকায় রাখা হয়েছে। নৌবাহিনীর লজিস্টিক্স হাবের দুই নাবিকের সম্প্রতি করোনা পরীক্ষা হলে একজনের রিপোর্ট পজিটিভ আসে। তাঁদের সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। এছাড়াও আইএলএস নেতাজিনগর এলাকায় কয়েকজন আক্রান্তের হদিশ মেলার পর ওই এলাকাকেও ফেলা হয়েছে কনটেনমেন্ট জোনে।

Related Articles

Back to top button
Close