fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত থেকে ৩ সন্দেহভাজন ব্যক্তি গ্রেফতার

মিল্টন পাল, মালদা: রাতের অন্ধকারে সীমান্ত পথ দিয়ে ভারতীয় টাকা নিয়ে যাওয়ার পথে বিএসএফের হাতে ধৃত ৩ জন। প্রাথমিক তদন্তে অনুমান ধৃতরা বাজার করার টাকা নিয়ে ফিরছিল। ধৃতদের কাছ থেকে উদ্ধার হয়েছে মোবাইল ফোন, প্রায় ৮ লক্ষ টাকার ভারতীয় টাকা ও একটি মারুতি গাড়ি। ঘটনাটি ঘটেছে মালদার ইংরেজবাজার থানার ভারত বাংলাদেশ সীমান্তবর্তী মহদীপুর এলাকায়। ইতিমধ্যেই ধৃতদেরকে ইংরেজবাজার থানার পুলিশের হাতে তুলে দিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

                    আরও পড়ুন: করোনা যুদ্ধে জয়ী হয়ে কাজে ফিরলেন দিল্লির স্বাস্থ্যমন্ত্রী

বিএসএফ সূত্রে জানা গিয়েছে, দিলীপ মন্ডল, কৃষ্ণ মন্ডল, নিখিল মন্ডল এর বাড়ি কালিয়াচক থানা এলাকায়। রবিবার গভীর রাত্রে মালদার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত এলাকা দিয়ে একটি মারুতি ভ্যান গাড়িতে করে সীমান্ত পথ দিয়ে যাচ্ছিল। সেই সময় যাওয়ার পথে কর্তব্যরত ২৪ নম্বর ব্যাটেলিয়ানের জওয়ানরা তাদের গাড়ি থামাতে গেলে বিএসএফের চেকপোস্টে গাড়ি না থামিয়ে তারা পালানোর চেষ্টা করে। এদিকে বিএসএফ তাদের পিছনে ধাওয়া করলে মহদীপুর বিওপির কাছে তাদেরকে ধরে ফেলে জওয়ানরা। তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা সদুত্তর দিতে পারেনি। তারপর তাদের গাড়ির ভিতরে তল্লাশি চালানোর সময় উদ্ধার হয় সাত লাখ সাতশো টাকার ভারতীয় নোট ও তিনটি মোবাইল ফোন। বিএসএফের সন্দেহ, তারা কোনও চোরাই জিনিসপত্র কোথাও পাচার করার পর সেই টাকা নিয়ে তারা অন্যত্র কোথাও যাচ্ছিল। সেই সময় তাদেরকে আটক করে বিএসএফের জওয়ানরা। এদিকে সোমবার দুপুরে বিএসএফের ২৪ নম্বর ব্যাটালিয়ন তারা সন্দেহভাজন তিন ব্যক্তিকে সহ টাকা ও মোবাইল ফোন ইংরেজবাজার থানার পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে,তবে তারা কোথায থেকে এতগুলো টাকা পেল বা কোথায় নিয়ে যাচ্ছিল গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে ইংরেজবাজার থানার পুলিশ।

 

Related Articles

Back to top button
Close