fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

পূর্ব মেদিনীপুরে তিনটি অস্বাভাবিক মৃত্যু!

নিজস্ব প্রতিনিধি (পূর্ব মেদিনীপুর): পূর্ব মেদিনীপুর জেলার তিনটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়ালো। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পটাশপুর ২ ব্লকের খড়ই কোটবাড় গ্রামে মঙ্গলবার সকালে বাঁশ জঞ্জল থেকে এক আধিবাসী মহিলার ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার হয়। পুলিশ মৃতদেহটি উদ্ধার করে কাঁথি হাসপাতালে ময়না তদন্তের পাঠিয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে মৃতের নাম তুলসী সিং (৬১)।

জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার সকালে বাড়ি সংলগ্ন খালপাড়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় তার ঝুলন্ত মৃতদেহ দেখতে পায় স্থানীয় বাসিন্দারা। পুলিশ এসে ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার করে নিয়ে যায়। মানসিক অবসাদের কারনে আত্মঘাতী বলে পুলিশের প্রাথমিক অনুমান।

অপর দিকে কোলাঘাট মেচেদা সংলগ্ন বাড়িতে কাজ করতে বিদ্যুৎপৃষ্ট হয়ে মৃত্যু হয় এক শ্রমিকের। পুলিশ জানিয়েছে মৃতের নাম নুর মহম্মদ (৩৬)। তার বাড়ি তমলুক থানার ধলহরা গ্রামে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে যে, তমলুকে বাড়ি হলেও শাস্তিপুরে শ্বশুরবাড়িতে থাকত সে। আমফানের ফলে এক গৃহস্থের বাড়ি চালা সম্পুন্ন ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে যায়। মঙ্গলবার সকালে বাড়ির চালা মেরামতি করতে যায় নুর সহ তার সহকর্মীরা।

ঝড়ের ফলে বাড়ি পাশের বিদ্যুতের লাইন ঝুলে পড়ে। অসাবধানতাবশত সেই লাইনেই বিদ্যুৎপৃষ্ট হয়ে মারা যান তিনি। কোলাঘাট থানার পুলিশ মৃতদেহটি ময়না তদন্তে পাঠিয়েছে।

অপরদিকে কাঁথি দেশপ্রাণ ব্লকের বসন্তিয়া গ্রামের গাছ থেকে পড়ে মৃত্যু হয় শান্তি বেরা (৬৩) নামে এক বৃদ্ধের। আমফান ঝড়ের ফলে রাস্তা ও বাড়ি উপর অসংখ্য গাছ পড়ে যায়। সেই সমন্ত গাছ পরিস্কার করতে গিয়ে গাছ থেকে পড়ে যায় ওই বৃদ্ধ। এরপর পরিবারের লোকেরা তাকে উদ্ধার করে কাঁথি হাসপাতালের ভর্তি করলে কিছুক্ষন পরেই তার মৃত্যু হয়।

Related Articles

Back to top button
Close