fbpx
কলকাতাহেডলাইন

করোনা আক্রান্ত রাইফেল ফ্যাক্টরির ৩২ জন কর্মী, কর্তৃপক্ষের উদাসীনতায় বাড়ছে ক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: করোনার মারাত্মক সংক্রমণ সত্ত্বেও ইছাপুর রাইফেল ফ্যাক্টরি এবং মেটাল অ্যান্ড স্টিল ফ্যাক্টরি দুটিকে কনটেনমেন্ট জোন হিসাবে ঘোষণা করা হয়নি। কর্মীদের হাজিরার কড়াকড়িও রয়েছে আগের মতই। কিন্তু এই রাইফেল ফ্যাক্টরিতেই সম্প্রতি সামনে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য। ইতিমধ্যে এই দু’টি কারখানার ৩২ জন কর্মী করোনা-আক্রান্ত হয়েছেন বলে খবর। তারপরেও কর্তৃপক্ষের উদাসীনতায় স্বাভাবিকভাবেই ক্ষোভে ফেটে পড়েছেন কর্মীরা।
  শুধুমাত্র রাইফেল কারখানাতেই কাজ করছেন প্রায় ৩৪০০ জন কর্মী। মেটাল অ্যান্ড স্টিল কারখানাতেও কর্মী হাজারেরও বেশি। সব মিলিয়ে প্রায় সাড়ে ৪ হাজারের বেশি কর্মী এই দুই ফ্যাক্টরিতে কাজ করেন। তার মধ্যে এতজন কর্মী সংক্রমণের পরেও কর্তৃপক্ষ উদাসীনতায় কর্মী ইউনিয়নের তরফে জেলা প্রশাসন এবং ব্যারাকপুর কমিশনারেটে চিঠি দেওয়া হয়। কিন্তু তারপরেও কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ। ফলে ঝুঁকি নিয়েও কাজে যেতে বাধ্য হচ্ছেন কর্মীরা।
তাদের দাবি, এমনিতেই লকডাউনের জন্য কারখানায় বিশেষ কিছু কাজ হচ্ছে না। লকডাউনের জন্য দীর্ঘ দিন ধরে সব কাঁচামাল আসছে না। অস্ত্র তৈরি বা সরবরাহ করা সম্ভব হচ্ছে না। চাইলে কম সংখ্যক কর্মী নিয়ে কাজ করা যায়। কিন্তু কর্তৃপক্ষের একগুঁয়েমির ফলে ভুগতে হচ্ছে তাঁদের। পরিস্থিতি অসহনীয় জায়গায় পৌঁছলে তারা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হবেন।

Related Articles

Back to top button
Close