fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

তৃণমূলের সভায় অনুপস্থিত উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী সহ ৫ জন বিধায়ক, প্রকাশ্যে গোষ্ঠী কোন্দল

জেলা প্রতিনিধি, কোচবিহার: কোচবিহারে প্রকাশ্যে এল শাসক দলের গোষ্ঠী কোন্দল। মঙ্গলবার কোচবিহার সাহিত্য সভা অনুষ্ঠিত হয়। আর তাতেই গোষ্ঠী কোন্দল আরো একবার প্রকাশ্যে উঠে গেল তৃণমূল কংগ্রেসের। এদিন সকাল থেকেই সাজ সাজ রব ছিল সাহিত্য সভাতে। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন পার্থপ্রতিম রায় সহ দিনহাটা বিধানসভার বিধায়ক উদয়ন গুহ, মেখলিগঞ্জ এর বিধায়ক অর্ঘ্য রায় প্রধান, মাথাভাঙ্গার বিধায়ক তথা মন্ত্রী বিনয় কৃষ্ণ বর্মন।

এছাড়াও জেলার বেশকিছু নেতৃত্ব এদিন উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু এত সবের মধ্যে অউপস্থিতির হার যথেষ্ট। সভাতে আসেন নি উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী তথা নাটাবাড়ি বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক রবীন্দ্রনাথ ঘোষ, তুফানগঞ্জ বিধানসভার বিধায়ক ফজল করিম মিয়া, সিতাই বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক জগদীশ বর্মা বসুনিয়া, শীতলকুচি র বিধায়ক হিতেন বর্মন, কোচবিহার উত্তর বিধানসভা কেন্দ্রের পর্যবেক্ষক পরিমল বর্মন, এবং কোচবিহার দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক মিহির গোস্বামী। এদের ছাড়াই সভা হয়। পার্থ প্রতিম রায়ের সঙ্গে ইতিমধ্যেই বিধায়কদের অন্তর্কলহ প্রকাশ্যে এসেছে, পার্থ প্রতিম রায় এবং সংশ্লিষ্ট টিম পিকে-র বিরুদ্ধে এক এক করে মুখ খুলেছেন বিধায়কেরা।

                      আরও পড়ুন: ভাতারে আগুন লেগে ভস্মীভূত মারুতি গাড়ি

কোনও এজেন্সি দিয়ে সংগঠন চালানো যায় না এমনটাও মন্তব্য উঠে এসেছে বিধায়ক তথা নেতৃত্ব দেওয়ার মাধ্যমে। এদিনের অনুপস্থিতি গোষ্ঠী কোন্দল এর অভিযোগকে সুস্পষ্টভাবে প্রমাণ করে বলেই ধারণা রাজনৈতিক মহলের।

একই সঙ্গে কোচবিহার উত্তর বিধান সভা কেন্দ্রের ব্লকের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ও অঞ্চল কমিটির পদাধিকারীদের নাম প্রকাশ করল কোচবিহার জেলা তৃণমূল কংগ্রেস। এদিন ‘কোচবিহার উত্তরের গর্ব মমতা’ এই ফেসবুক পেজে তৃণমূল কংগ্রেসের কোচবিহার জেলা সভাপতি পার্থপ্রতিম রায় স্বাক্ষরিত সেই নামের তালিকা প্রকাশ করেন। যদিও বা এই বিষয়ে জেলা সভাপতির সুস্পষ্ট কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। বলাইবাহুল্য, বেশ কিছুদিন আগে ব্লক সভাপতিদের নাম প্রকাশ করা হয়েছিল আর তারপর থেকেই কোচবিহার জেলায় তৃণমূল কংগ্রেসের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের চরম আকার নিয়েছে। ২০২১ বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল করতে পারবে তাই এখন কৌতূহলের সঙ্গে দেখতে মরিয়া কোচবিহারের সাধারণ বাসিন্দারা।

Related Articles

Back to top button
Close