fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

মাছ ধরতে গিয়ে ডুবে গেল যন্ত্রচালিত নৌকা, সমুদ্র থেকে উদ্ধার পাঁচজন মৎস্যজীবি 

মিলন পণ্ডা, মন্দারমনি (পূর্ব মেদিনীপুর): করোনা সংক্রমনের জেরে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে দিঘা মোহনার বৃহত্তম পাইকারি বাজার। আগামী ১ জুলাইয়ের আগে খুলবে না দিঘা মোহনা পাইকারী বাজার। তাই লঞ্চ ও ট্রলার দিঘার সমুদ্রের মৎস্য ফিশিং আপতত বন্ধ করেছে। আর সেই কারণে কাঁথি ও এগরা মহাকুমা বিভিন্ন বাজার সামদ্রিক মাছের চাহিদা বেড়ে গেছে।

সাধারণ মানুষের কিছুটা সামদ্রিক মাছের চাহিদা মেটানোর জন্য স্থানীয় কিছু মৎস্যজীবিদের নিয়ে ছোট যন্ত্রচালিত নৌকা নিয়ে মাছের জন্য সমুদ্রের পাড়ি দেন। শুক্রবার সকালে মান্দারমনি থেকে সমুদ্রের মাছ ধরার জন্য একটি যন্ত্রচালিত নৌকা নিয়ে ছয়জন মৎস্যজীবি মৎস্য শিকারে যান। মাছ ধরে ফেরার পথে এদিন সন্ধ্যায় নৌকাটি মাছ সহ তাজপুরে  উওাল সমুদ্রের ডুবে যায়। যন্ত্রচালিত নৌকা থাকা পাঁচজন মৎস্যজীবি কোনও রকমে সাঁতার কেটে পাড়ে উঠে। অসুস্থ বোধ করলে মৎস্যজীবিদের উদ্ধার করে স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ভর্তি করা হয়। প্রাথমিক চিকিৎসা পর মৎস্যজীবিদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

উদ্ধার হওয়া পাঁচ মৎস্যজীবী

পুলিশ ও স্থানীয় সূএে জানা গিয়েছে, শুক্রবার সকালে সমুদ্রের মৎস্য শিকারের জন্য নৌকা মালিক আইদুল মহম্মদ সহ পাঁচজন মৎস্যজীবি নিয়ে পাড়ি দেন। নৌকাতে প্রায় চারটি জাল ফেলে সমুদ্রের মৎস্য শিকারের পর ফিরে আসছিল নৌকাটি। তাজপুর থেকে সমুদ্র পাড় থেকে কিছুটা দূরে যন্ত্রচালিত নৌকাটি আচমকা ডুবে যায়। নৌকাতে থাকা পাঁচজন মৎস্যজীবি কোনওরকমে সাঁতার কেটে পাড়ে উঠে।

শনিবার সকালে পূনরায় মৎস্যজীবির খোঁজ করলে ডুবে যাওয়া নৌকাটির হৃদিশ পায়। তারপরে অন্যন্য মৎস্যজীবিদের সহযোগিতায় ডুবে যাওয়ার নৌকা উদ্ধার করে নিয়ে আসে। মৎস্যজীবি নেতা লক্ষীনারায়ন জানা বলেন, সমুদ্রের মৎস্য শিকার করে আসার সময় তাজপুরের কিছুটা আগে ডুবে যায়। শনিবার সকালে ডুবে যাওয়ার নৌকা ও জাল উদ্ধার করে নিয়ে আসা হয়েছে। বর্তমানে মৎস্যজীবিরা সুস্থ রয়েছে।

মন্দারমনি উপকূল থানার ওসি শুভজিৎ সরকার বলেন, শুক্রবার সন্ধ্যায় মাছ ধরে ফিরে আসার সময় যন্ত্রচালিত নৌকাটি আচমকা ডুবে যায়। অবশেষে মৎস্যজীবিরা সাঁতার কেটে পাড়ে উঠে আসে। সমুদ্র থেকে উদ্ধার মৎস্যজীবিরা বিপদ মুক্ত বলে জানা গিয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close