fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

দশম শ্রেণির ছাত্রীর দেহ উদ্ধারে রহস্য তৈরী হাওড়ায়

মনোজ চক্রবর্তী, হাওড়া : বৃহস্পতিবার সকালে হাওড়ার সাঁতরাগাছি থানার বাকসাড়া দক্ষিণ পালপাড়ায় দশম শ্রেণীর এক ছাত্রীর মৃত্যুর ঘটনায় একদিকে যেমন তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে অন্যদিকে তেমনি দানা বেঁধেছে রহস্য। উল্লেখ্য বুধবার রাত থেকে নিখোঁজ ছিল প্রেয়শ্রী ঘোষ (১৬) নামে ওই ছাত্রী। বৃহস্পতিবার সকালে দেহটি একটি পুকুর থেকে উদ্ধার হয়।

 

 

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, প্রেয়সীর শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। প্রেয়সীর পরিবারের অভিযোগ, তাকে খুন করে পুকুরে ফেলে দেওয়া হয়েছে। তবে তার মোবাইল ফোন এখনো পাওয়া যায়নি। জানা গিয়েছে, দক্ষিণ পাল পাড়ার কিশোরী প্রেয়শ্রীর বাড়ির সবাই যখন ঘুমিয়ে পড়ে তখন সে বাড়ির পাঁচিল টপকে বেরিয়ে যায়। পরিচিত বন্ধুরা তাকে ফোন করে ডেকেছিল বলে অভিযোগ প্রেয়সীর পরিবারের। কিন্তু কি কারণে এই ঘটনা তা এখনো পরিষ্কার নয় পুলিশের কাছে । তবে প্রেয়সীর দুজন বন্ধুকে দায়ী করছে পরিবারের লোকজন।

 

 

 

এদিন প্রেয়সীর বাড়ি থেকে কিছুটা দূরে একটি পুকুরে মৃতদেহ ভাসতে দেখে খবর দেওয়া হয় পুলিশে। পুলিশ এসে মৃত দেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য পাঠায় ।কিন্তু কিভাবে মৃত্যু হল তা জানতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। প্রেয়শী যে পাঁচিল টপকে পালিয়েছে -তা পরিবারের লোকজন জানলেন কি ভাবে ?-এই বিষয়টিও ভাবাচ্ছে পুলিশকে । অন্যদিকে দুজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশ জানার চেষ্টা করছে প্রেয়শীর গতিবিধি কেমন ছিল ? তার সঙ্গে কারো কোনো সম্পর্ক ছিল কিনা কিংবা কারো সঙ্গে ঝগড়া ছিল কিনা অথবা প্রেয়শীর বাড়ির লোকজনের সঙ্গে কারো অশান্তি ছিল কিনা -সবই খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে সি টি পুলিশ । এদিকে এই ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Related Articles

Back to top button
Close