fbpx
কলকাতাহেডলাইন

বচসা চলাকালীন বাজারে প্রকাশ্যে আচমকা ২ জনকে চপারের কোপ, চাঞ্চল্য যোধপুর পার্কে

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বচসা চলাকালীন আচমকাই উত্তেজনার বশে বাজারে প্রকাশ্যে দু’জনকে চপার দিয়ে কুপিয়ে খুনের চেষ্টার অভিযোগ উঠল এক মাংস বিক্রেতার বিরুদ্ধে। বুধবার ভর সন্ধ্যায় যোধপুর পার্ক বাজারের এই ঘটনায় রীতিমত চাঞ্চল্য ছড়ায়।
গুরুতর জখম অবস্থায় দুই ব্যক্তি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে লেক থানার পুলিশ। তবে অভিযুক্ত মাংস বিক্রেতা পলাতক। তার সঙ্গে ঘটনায় যুক্ত আরও কয়েকজনকে খুঁজছে পুলিশ।
কিন্তু কেন হঠাৎ ওই দুজনকে চপারের কোপ দিয়ে মারতে উদ্যত হলেন ওই ব্যবসায়ী?  ঘটনা তদন্তে নেমে পুলিশ জানতে পেরেছে, ২ দিন আগে যোধপুর পার্ক বাজার এলাকায় দুটি পাড়ার মধ্যে সাময়িক ঝামেলা হয়। সেই ঝামেলা থামাতে যান সনৎ নস্কর নামে এক বাসিন্দা। তখনকার মতো ঝামেলা মিটে যায়। বুধবার দিনের বেলা সনৎবাবু কাজে যাওয়ার সময় ওই পাড়া দিয়ে গেলে কয়েকজন তাঁর উপর চড়াও হয়ে মারধর করে বলে অভিযোগ। তিনিও পাল্টা প্রতিরোধ করেন। এরপর বাড়ি ফিরে সনৎবাবু ঘটনাটি জানান তাঁর কাকা বিশ্বজিৎ নস্করকে।
এরপর বিষয়টি মিটমাট করতে উদ্যত হন বিশ্বজিৎবাবু। তিনি এবং তাঁর এক বন্ধু গোপাল দাস বুধবার সন্ধেবেলা ওই যুবকদের সঙ্গে কথা বলতে চান। অভিযোগ, সেই কথা বলতে এলেই তাদের মধ্যে বচসা শুরু হয়। তার থেকে উত্তেজিত হয়ে বিশ্বজিৎ ও গোপালকে চপারের কোপ বসিয়ে দেয় এক ব্যক্তি। তাঁদের আহত অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করান প্রতিবেশীরাই।
স্থানীয় সূত্রে খবর, হামলাকারী ব্যক্তি মাংস ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত। ব্যবসা সংক্রান্ত কোনও বচসার কারণে এই হামলা কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্তে নেমেছে লেক থানার পুলিশ। কেউ গ্রেফতার না হওয়ায় পুলিশের ভূমিকা নিয়ে অভিযোগ তুলছেন জখম বিশ্বজিৎবাবুর স্ত্রী। তবে প্রকাশ্য বাজারে এই ধরনের ঘটনা ঘটায় সাধারণ মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close