fbpx
দেশহেডলাইন

দেশে বাড়ছে জনসংখ্যা! প্রধানমন্ত্রীকে ১৮ পাতার চিঠি লিখে আত্মহত্যা কিশোরীর

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে চিঠি লিখে আত্মঘাতী হল রক ১৬ বছরের নাবালিকা। পরিবেশ দূষণ, দেশে বাড়তে থাকা দুর্নীতি এবং জনসংখ্যা নিয়ে রীতিমতো দুশ্চিন্তায় ছিল মেয়েটা। তবে কাউকে সে কথা বলত না সে। এদিকে মানসিক অস্থিরতা ক্রমশ বাড়াচ্ছিল উদ্বেগ। আর তার জেরে শেষমেশ আত্মহত্যারই সিদ্ধান্ত নিল কিশোরী। সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে উদ্দেশ্য করে একটি সুইসাইড নোটও লিখে গিয়েছে সে।

জানা গিযেচেজ বছর ১৬’র ওই কিশোরী উত্তরপ্রদেশের সম্বলের বাসিন্দা। বেসরকারি স্কুলের ওই ছাত্রী স্বাধীনতা দিবসের আগের সন্ধেয় নিজের ঘরেই ছিল। বাবা-মা ছিলেন ঠিক তার পাশের ঘরে। সকলে ভেবেছিলেন মেয়ে হয়তো পড়াশোনায় মগ্ন। আচমকাই ঘর থেকে ভেসে এল গুলির শব্দ। দৌড়ে গেলেন বাবা-মা। ঘরের ভিতর তাকিয়ে দেখেন ঘরে পড়ে রয়েছে বাবার লাইসেন্সড বন্দুক। পড়ার টেবিলে মুখ থুবড়ে পড়ে রয়েছে কিশোরী। রক্তে ভেসে যাচ্ছে গোটা ঘর। তাঁদের চিৎকার চেঁচামেচিতে প্রতিবেশীরা জড়ো হয়ে যান। খবর দেওয়া হয় পুলিশে। তড়িঘড়ি পুলিশও ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। দেহ উদ্ধার করে পাঠানো হয় ময়নাতদন্তে।

তবে ঠিক কী কারণে আত্মঘাতী হল কিশোরী? তারই কোনও প্রমাণের খোঁজে তার পড়ার টেবিল তন্নতন্ন করে খোঁজা হয়। সেখান থেকে পাওয়া যায় একটি ১৮ পাতার সুইসাইড নোট। আর তাতেই লেখা রয়েছে দূষণ, দেশে বাড়তে থাকা দুর্নীতি এবং জনবিস্ফোরণ নিয়ে আশঙ্কার কথা। সেই আশঙ্কার ফলে মানসিক উদ্বেগ এবং সে কারণেই ওই কিশোরী জীবন শেষ করে দিতে চাইছে বলেও প্রধানমন্ত্রীকে নরেন্দ্র মোদিকে উদ্দেশ্য করে লেখা সুইসাইড নোটেও উল্লেখ করেছে সে। এদিকে মেয়ের এহেন অকাল মৃত্যুতে পরিবারে গভীর শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Related Articles

Back to top button
Close