fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

অযোধ্যার শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থ ক্ষেত্র ট্রাস্টের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে গায়েব লক্ষাধিক টাকা!

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: অবিশ্বাস্য…চেক জালিয়াতি করে অযোধ্যার শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থ ক্ষেত্র ট্রাস্টের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে গায়েব লক্ষাধিক টাকা। সূত্র মারফত এমনটাও জানা যাচ্ছে।

অন্যদিকে পুলিশ সূত্রে খবর, ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থেকে ৬ লক্ষ টাকা তুলে নেওয়া হয়েছে। অযোধ্যার ডেপুটি ইনস্পেক্টর জেনারেল দীপক কুমার জানিয়েছেন, চেক নকল করে একবার ২.৫ লক্ষ টাকা ও একবার ৩.৫ লক্ষ টাকা তোলা হয়। রাম মন্দির ট্রাস্টের সম্পাদক চম্পট রাইয়ের অভিযোগের ভিত্তিতে অজ্ঞাতপরিচয়ের প্রতারকের বিরুদ্ধে এফ আইআর দায়ের  করা হয়েছে।

ডিআইজি দীপক কুমার জানান, যে সিরিয়াল নম্বরের চেক দু’টি ভাঙিয়ে ৬ লক্ষ টাকা তোলা হয়েছে, সেই সিরিয়াল নম্বরের আসল চেক ট্রাস্ট কর্তৃপক্ষের কাছে রয়েছে। কীভাবে জালিয়াতি সামনে এল ? ডিআইজি জানান, বুধবার বিকেলে ট্রাস্টের সম্পাদক চম্পট রাইয়ের কাছে ব্যাঙ্কের তরফে একটি ভেরিফিকেশন কল আসে। তাঁকে জানানো হয়, মন্দিরের অ্যাকাউন্ট থেকে ৯ লক্ষ ৮৬ হাজার টাকা তোলা হচ্ছে । এরপরই ধরা পড়ে জালিয়াতি! জানা যায়, ইতিমধ্যেই ১ সেপ্টেম্বর ও ৩ সেপ্টেম্বর দুটি নকল চেক ব্যবহার করে  ২.৫ লক্ষ ও ৩.৫ লক্ষ টাকা  তোলা হয়েছে।

ডিআইজি জানিয়েছেন, প্রাথমিক তদন্তে খতিয়ে দেখা হচ্ছে ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষের কোনও গাফিলতি রয়েছে কিনা! এও দেখা হচ্ছে, কোনও ব্যাঙ্ককর্মী এই জালিয়াতিতে যুক্ত কিনা! কারণ, চেকের নির্দিষ্ট সিরিয়াল নম্বর গ্রাহক ছাড়া একমাত্র ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষের কাছেই থাকে। সেই সিরিয়াল নম্বর প্রতারকরা পেয়েছে বলেই চেক ক্লোন করতে পেরেছে! নকল চেকে চম্পট রাই এবং ট্রাস্টের আর এক সদস্যের সই-ও ছিল। জানা যায়, অ্যাকাউন্ট থেকে তোলা টাকা পঞ্জাব ন্যাশনাল ব্যাঙ্কের একটি অ্যাকাউন্টে ট্রান্সফার করা হয়েছে।

এ বিষয়ে ক্ষোভ উগরে দিয়েছে বিশ্ব হিন্দু পরিষদ। পরিষদের আঞ্চলিক মুখপাত্র শরদ শর্মা জানিয়েছেন, ” অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করতে হবে।”

Related Articles

Back to top button
Close