fbpx
দেশহেডলাইন

সাতসকালে ফের ভূমিকম্পে কাঁপল লাদাখ

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: বিশেষজ্ঞদের আশঙ্কাই সত্যি হল, ফের ভূমিকম্পে কাঁপল ভারতের মাটি। লাদাখে মৃদু কম্পন অনুভূত হল। জানা গিয়েছে, সোমবার সাত সকালে কেঁপে উঠল ভূস্বর্গ। জাতীয় ভূমিকম্প কেন্দ্র থেকে জানানো হয়েছে, রিখটার স্কেলে কম্পনের তীব্রতা ছিল ৩.৫। এদিন সকাল ৬.৫৪ মিনিটে জম্মু ও কাশ্মীরের উত্তর-পশ্চিমের ৫১ কিমি দূরে হ্যানলে এলাকায় ছিল কম্পনের কেন্দ্রস্থল। ভূপৃষ্ঠ থেকে ১০ কিমি গভীরে ছিল ওই ভূমিকম্পের কেন্দ্রবিন্দু। তবে এই ঘটনার জেরে কোনও প্রাণহানি বা ক্ষয়ক্ষতির খবর মেলেনি।

প্রসঙ্গত, গত সপ্তাহের শুক্রবার বিকেলে জোরালো ভূমিকম্পে ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে তুরস্কের পশ্চিম উপকূল ও গ্রিসের একাংশ। ওইদিনন রিখটার স্কেলে কম্পনের মাত্রা ছিল ৭.০। এখনও পর্যন্ত আহতের সংখ্যা সাতশো ছাড়িয়ে গিয়েছে। মৃত্যুসংখ্যা ৭৬। তবে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা। এমন শক্তিশালী ভূমিকম্পের দৃশ্য আগে কখনও দেখেনি তুরস্ক ও গ্রিস। ভূমিকম্পের তীব্রতায় আজিয়ান সাগরের জলস্তর বেড়ে গিয়ে ছোটখাটো সুনামির আকার নিয়েছে বলে খবর।

              আরও পড়ুন: নদিয়া জেলায় তৃণমূল কংগ্রেসের সাংগঠনিক স্তরে ব্যাপক রদবদল

মৃতদের মধ্যে অধিকাংশই তুরস্কের পশ্চিমাংশ উপকূলের অঞ্চলের বাসিন্দা। প্রাণ গিয়েছে গ্রিসের সামোস দ্বীপের কয়েক জনেরও। প্রসঙ্গত, তুরস্ক ও গ্রিসে মূল ভূমিকম্পের পর একাধিকবার আফটারশকের খবর মিলেছে। ১৯৬ বার আফটারশকের পর তীব্র আতঙ্কে রয়েছেন বাসিন্দারা। স্থানীয়দের তত্ক্ষনাৎ সতর্ক করে দেওয়া হয়।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

গত কয়েক সপ্তাহে পর পর কাঁপছে লাদাখ এলাকা। গত কয়েক মাসে একাধিক বার ভূমিকম্প হয়েছে জম্মু-কাশ্মীর, দিল্লি-সহ উত্তর ও উত্তরপূর্ব ভারতে। বিশেষজ্ঞদের কপালে চিন্তার ভাঁজ ফেলেছে ঘনঘন ভূমিকম্প। গোটা জুন মাসে জম্মু-কাশ্মীরে পাঁচটির বেশি ভূমিকম্প হয়েছে। অধিকাংশই কম্পনই যদিও ছিল মৃদু কম্পাঙ্কের। ফলে, ক্ষয়ক্ষতি সে ভাবে হয়নি।

Related Articles

Back to top button
Close