fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

রাজ্যে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ স্কুল-কলেজ

অভিষেক গঙ্গোপাধ্যায়, কলকাতা: রাজ্যের কোভিড পরিস্থিত স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গে খুলচ্ছে না স্কুল কলেজ। সর্বসম্মতিক্রমে একথা জানালেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। মঙ্গলবারের পর বুধবারও শিক্ষামন্ত্রীর গলায় একই শূর। তিনি বলেন, ‘কেন্দ্রের ছাড়পত্র থাকলেও বাংলায় তা কার্যকর হচ্ছে না। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত রাজ্যে স্কুল কলেজ খােলা হবে না। এর আগে রাজ্য সরকারে তরফে জানানাে হয়েছিল , আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত স্কুল কলেজ বন্ধ থাকবে রাজ্যে। কিন্তু কেন্দ্রের তরফে বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলা হয়েছে, অভিভাবকদের সম্মতি থাকলে আগামী ২১ তারিখ থেকে পড়ুয়াদের স্কুলে পাঠাতে পারবেন । কিন্তু রাজ্য ও কেন্দ্রের দুই প্রকার সিদ্ধান্তের ফলে বিভ্রান্তির শিকার হচ্ছেন পড়ুয়ারা।
অভিভাবকদের সম্মতি নিয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক আগামী ২১ সেপ্টেম্বর থেকে স্কুল খােলার ছাড়পত্র দিয়েছে। নবম , দশম , একাদশ , দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়ারা আগামী ২১ সেপ্টম্বর থেকে স্কুলে যেতে পারবে বলে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক ।

অভিভাবক ও পড়ুয়ারাদের অনেকের মধ্যে প্রশ্ন দেখ দিয়েছিল, যেভাবে করােনা সংক্রমণ বেড়ে চলেছে, তাতে স্কুল কলেজ খুললে কীভাবে পড়ুয়াদের যাবেন। কিন্তু শিক্ষামন্ত্রী পূর্ব ঘােষিত ৩০ সেপ্টেম্বরের কথা মনে করিয়ে দিয়ে বলেন, রাজ্যে আপাতত খুলবে না স্কুল – কলেজ । সেক্ষেত্রে বিষয়টি পরে পুনর্বিবেচনা করে রাজ্য তরফে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে।’ পার্থবাবু এরপর বলেন, ” কলেজ – বিশ্ববিদ্যালয়ের ছেলেমেয়েরা তাে সিনিয়র। কিন্তু করােনা – আক্রান্তের সংখ্যা যখন হুহু করে বাড়ছে , সেই সময়ে স্কুল কী ভাবে খুলবে , মাথায় আসছে না, আমাদের যে – গ্লোবাল কমিটি রয়েছে , তারাও আশঙ্কায় রয়েছেন । ‘ পাশাপাশি তিনি জানান , রাজ্য সরকার পড়ুয়াদের স্বাস্থ্যের দিক নিয়ে চিন্তিত । তবে বাড়িতে থেকেও কিভাবে পড়ুয়াদের কাছে পৌঁছানাে যায় সেকথাও ভাবছে রাজ্য । ইতিমধ্যেই একাধিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে রাজ্য তরফে পড়ুয়াদের পড়ানাের উদ্দেশ্যে। সূত্রের খবর, সেই বিকল্প পথ নিয়েও শীঘ্রই আলোচনায় বসবে বিশেষজ্ঞ কমিটি। তার পরেই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে এ বিষয়ে।

Related Articles

Back to top button
Close