fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

বধূকে বেধড়ক মারধর ও শ্লীলতাহানীর অভিযোগ প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে, আক্রান্ত ৩

শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা: বধূকে বেধড়ক মারধর ও শ্লীলতাহানীর অভিযোগ উঠল  প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে। ঘটনার জেরে তিনজন আক্রান্ত হয়েছেন। বসিরহাট মহাকুমার হাড়োয়া থানার গোপালপুর ২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের মল্লিক ঘেরি গ্রামের ঘটনা।

সুপর্ণা দাস-এর পরিবারের সঙ্গে প্রতিবেশী অম্বরী মন্ডল-এর পরিবারের সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে বিবাদ চলে আসছিল। এরপর শুক্রবার রাতে বিবাদ চরম পর্যায়ে পৌঁছায়। বধূকে দেখে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে কটুক্তি করতে থাকে। বধূ তাঁর প্রতিবাদ করলে প্রতিবেশীরা তাকে বেধড়ক মারধর করে। এমনকি বধূর জামা কাপড় ছিড়ে দেওয়া হয় এবং বধুকে ইট ও  লোহার রড দিয়ে বেধড়ক মারধর করে।

এরপর বধূ মাটিতে লুটিয়ে পড়ে, প্রচুর পরিমাণে রক্ত ক্ষরণ হয়, তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে হাড়োয়া গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে স্থানান্তর করে বারাসাতে হাসপাতলে। ওই বধূর পরিবারের লোকজন হাড়োয়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করে, অম্বরী মন্ডল, শুভেন্দু মন্ডল, অসীম মন্ডল এই তিনজনের বিরুদ্ধে। এরপর আক্রান্ত বধূর পরিবার অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ।

এই ঘটনায় পেছনে অন্য কোনো কারণ আছে কিনা সেটাও খতিয়ে দেখছে পুলিশ। শুধুই কি জমি বিবাদ? না পুরনো শত্রুতার জের? না কোনো রাজনৈতিক গন্ডগোল  ? তার পুরোটাই  তদন্ত শুরু করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওই এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে। ঐ এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ।

Related Articles

Back to top button
Close