fbpx
অসমদেশহেডলাইন

আফ্রিকান সোয়াইন ফ্লু-এর জের, ১৫ হাজার শুয়োর মৃত্যু অসমে

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: অসমে শুয়োরের মৃত্যুর সংখ্যা ছাড়াল ১৫০০০ এ।  মে মাস থেকেই এক অজানা ভাইরাসের কারণে হঠাৎ করে বহু শুয়োরের মৃত্যু হতে থাকে। সেইসময় জানা গিয়েছিল আফ্রিকান সোয়াইন ফ্লুয়ের কথা। অসমে প্রায় আড়াই হাজার শূকরের মৃত্যু হয়েছিল চলতি মাসের প্রথম সপ্তাহে। কিন্তু তিন সপ্তাহ কাটতে না কাটতেই তা পৌঁছে গেল প্রায় পনেরো হাজারে।

বুধবার অসমের পশুপালনমন্ত্রী অতুল বোরা সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ১৫ হাজার ৬০০ শুয়োরের মৃত্যু হয়েছে এই রোগে। যা উদ্বেগ বাড়িয়েছে অসম সরকারের। তবে করোনাভাইরাসের সঙ্গে এর কোনও সম্পর্ক নেই বলেও জানিয়েছেন মন্ত্রী। এদিকে ভোপালের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ হাই সিকিউরিটি অ্যানিমেল ডিজিসেস-এর তরফে নমুনা পরীক্ষার পর বলা হয় আফ্রিকান সোয়াইন ফ্লুয়ে আক্রান্ত হয়েই মৃত্যু হচ্ছে শূকরদের। হত্যা না করে কী ভাবে সংক্রমণ রোখা যায় তা নিয়ে শুরুর দিকে ভাবনাচিন্তা চললেও এদিন অসমের পশুপালন মন্ত্রী জানিয়েছেন, নির্দিষ্ট এলাকা ধরে শূকর হত্যা করতে হবে। না হলে সংক্রমণ রোখা যাবে না।

এহেন অবস্থায় প্রশ্ন উঠছে, এই রোগ কি শূকরের শরীর থেকে মানুষের শরীরে সংক্রামিত হতে পারে? সেই সম্ভাবনা কতটা?এ বিষয়ে অসমের পশুপালন মন্ত্রী জানিয়েছেন, শূকরের শরীর থেকে মানব শরীরে রোগ সংক্রমিত হওয়ার সম্ভাবনা নেই। সংক্রমণ নেই এমন এলাকায় শূকরের মাংস খাওয়ার ক্ষেত্রেও সমস্যা নেই বলে জানিয়েছেন তিনি।

Related Articles

Back to top button
Close