fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

নাবালিকা পড়ুয়াকে নিয়ে পালিয়ে গেল গৃহশিক্ষক, কুলটি থেকে গ্রেফতার

শুভেন্দু বন্দোপাধ্যায়, আসানসোল: নাবালিকা পড়ুয়াকে নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠলো তারই গৃহশিক্ষকের বিরুদ্ধে। পরিবারের তরফে নিঁখোজের অভিযোগ পেয়ে তদন্ত করতে নেমে ওই নাবালিকাকে কুলটি থানা এলাকা থেকে উদ্ধার করে বারাবনি থানার পুলিশ। এরপর অভিযুক্ত গৃহশিক্ষক গৌতম বাউরিকে গ্রেফতার করে।

ররিবার সকালে ধৃতকে আসানসোল আদালতে তোলা হলে বিচারক তার জামিন নাকচ করে ১৪ দিনের জেলা হাজতের নির্দেশ দেন। এদিন বিকালে আসানসোল জেলা হাসপাতালে নাবালিকার শারীরিক পরীক্ষা করানো হয়।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, আসানসোলের বারাবনি থানার চটিরানিগঞ্জের বাসিন্দা ১৬ বছরের নাবালিকা একাদশ শ্রেণীর পড়ুয়া ছিল। এলাকারই একটি স্কুলে সে পড়াশোনা করত। সে পড়তে যেতো গৌতম বাউরি নামে এক গৃহশিক্ষকের কাছে। গৌতম নিজের বাড়িতেই গ্রুপ করে পড়াতেন। ১ জুন থেকে শুরু হয় আনলক ১ শুরুর দিন ওই নাবালিকা পড়তে আসে। সেদিনই তাকে নিয়ে বছর ৩৬ গৌতম পালিয়ে যায়। অনেক জায়গায় খোঁজাখুঁজির পর মেয়েকে না পেয়ে চারদিন পরে গত ৫ জুন মেয়ের নিঁখোজের কথা জানিয়ে বাবা একটি মিসিং ডায়রি করেন বারাবনি থানায়। সেই অভিযোগের পরে বারাবনি থানার পুলিশ মোবাইল ট্র্যাক করে কুলটি থেকে দুজনেকই গ্রেফতার করে।

প্রাথমিক তদন্তের পরে পুলিশের অনুমান, বিয়ে করার উদ্দেশ্য নিয়েই ছাত্রীকে নিয়ে পালিয়ে গিয়েছিলেন ওই গৃহশিক্ষক ।

Related Articles

Back to top button
Close