fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

কালনায় শাড়ি ব্যবসার আড়ালে নকল মদ তৈরির কারবার, গ্রেফতার ১

নিজস্ব প্রতিনিধি, কালনা: শাড়ি ব্যবসার আড়ালে নকল মদ তৈরীর ব্যবসা! অলিতে-গলিতে নয় একেবারে শহরের বুকে চলছিল এই কাজ। পূর্ব বর্ধমানের কালনা শহরের যোগীপাড়ায় রমরমা এই কারবারররে জড়িত ব্যাক্তিদের হাতেনাতে ধরল আবগারি দফতর। গ্রেফতার করা হয় ওই কারবারের সঙ্গে যুক্ত হরেকৃষ্ণ দাসকে। ধৃতের বাড়ি ওই এলাকাতেই। অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করা হয় প্রচুর নকল মদ ও মদ তৈরির উপকরণ। ধৃতকে কালনা মহকুমা আদালতে তোলার পর পুলিশি হেপাজতে নেওয়া হয়।

স্থানীয় ও আবগারি দফতর সূত্রে জানা যায়, হরেকৃষ্ণ দাস নামে ওই ব্যক্তি নকল মদ তৈরির কারখানাটি গড়ে তোলেন কালনা শহরের যোগীপাড়ার একটি ভাড়া বাড়িতে। বছর খানেক আগেই তিনি প্রতি মাসে সাড়ে তিন হাজার টাকায় ওই বাড়ির দোতলায় ঘর ভাড়া নেন শাড়ির ব্যবসা করবেন বলে। কিন্তু দিনের পর দিন ব্যাগভর্তি মদ তৈরির উপকরণ আনলেও তা নাকি বুঝতেই পারেননি বলে দাবি বাড়ির মালিকের। দোতলার ওই ঘরে বসে মদ তৈরীর কারবার চালালেও ওই বাড়ির মালিক চিত্রা দেবীর দাবি, তিনি এই বিষয়ে কিছুই জানতেন না। যখন ওই ব্যক্তি আসতো বাড়ির ভিতর মালপত্র নিয়ে ঢুকতো তখন ব্যাগের উপরের দিক থেকে নাকি শাড়িই দেখা যেতো।

এভাবেই রমরমা কারবারে ধীরে ধীরে ফুলে ফেঁপে ওঠে হরেকৃষ্ণ দাসের ব্যবসা। যদিও এর আগে আরও একবার নকল মদ তৈরি করতে ধরা পড়েছিল ওই ব্যক্তি। জেলেও যায়। এরপরই নাকি সেখান থেকে ফিরে আসার পর শাড়ির ব্যবসা শুরু করে। আর তার আড়ালেই এইভাবে বছরের পর বছর এই কারবার চালানোর পরও তা ঘুণাক্ষরেও কেউ টের পাননি।এমন ঘটনায় সকলেরই চোখ কপালে উঠে যায়।

গোপন সূত্রে পাওয়ার পরই বুধবার গভীর রাতে ডেপুটি এক্সাইজ কালেক্টর অরুণ কুমার হাজরা ও কালনার আবগারি ওসি গোপীনাথ সিনহার নেতৃত্বে অভিযান চলে। হরেকৃষ্ণ দাস নামে ওই ব্যক্তিকে গ্রেফতারের পরই নকল দেশী ও বিদেশী মদ, মদ তৈরীর উপকরণ, স্পিরিট, হলোগ্রাম ইত্যাদি উদ্ধার হয়। আর এই মালপত্র সে কলকাতা থেকে আনতো বলে জেরায় জানায় সে। এইভাবে মদ তৈরী করে কালনা, হুগলী, নদিয়াসহ বিভিন্ন এলাকায় সরবরাহ করত। এই বিষয়ে ডেপুটি এক্সাইজ কালেক্টর অরুণ কুমার হাজরা বলেন, “এই অভিযানে তিনশো বোতল নকল দেশী মদ, ৫০ লিটার স্পিরিট, ১৮ লিটার বিদেশী মদের লিকুইড ভর্তি জার, ৩০০ হলোগ্রাম সহ বিভিন্ন ধরনের সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।”

Related Articles

Back to top button
Close