fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

গণতন্ত্র বিপন্ন, ২১-এর নির্বাচনে ফিরিয়ে আনতে হবে সেই গণতন্ত্রকে: বিজেপি

বাবলু বন্দোপাধ্যায়, কোলাঘাট: পূর্ব মেদনীপুর জেলাজুড়ে ভারতীয় জনতা পার্টির প্রশিক্ষণ শিবির শুরু হলো রবিবার। জেলার বিভিন্ন মণ্ডলে এই প্রশিক্ষণ শিবিরে পার্টির গঠনতন্ত্র থেকে সাংগঠনিক নানা বিষয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে।

সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত এই প্রশিক্ষণ শিবির গুলিতে ধারাবাহিকভাবে কর্মীদের উপস্থিতি ছিল নজরকাড়া। এই শিবির থেকেই ২১ সালের নির্বাচনে কর্মীদের ভূমিকা কোন পথে চালিত হবে তার দিশাও নেতৃত্বদের দিতে দেখা গেছে। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার বিভিন্ন মন্ডলের সঙ্গে তমলুক সাংগঠনিক জেলার কোলাঘাট মন্ডল ২ ও শহীদ মাতঙ্গিনী ব্লকের মন্ডল ১ শিবিরে রাজ্য বিজেপি নেতা মলয় সিংহ ও নীলাঞ্জন অধিকারী প্রশিক্ষণ শিবিরে যোগ দিয়ে ভারতীয় জনতা পার্টির ইতিহাস,পার্টির বিকাশ, ও বিচারব্যবস্থার নানাদিকের আলোচনা করা হয়।

এর পাশাপাশি কর্মীদের উদ্দেশ্যে বার্তা দিলেন বর্তমান পশ্চিমবঙ্গে আজ গণতন্ত্র বিপন্ন, সেই গণতন্ত্রকে ফিরিয়ে আনার দায়িত্ব কর্মীদেরই নিতে হবে। বর্তমান রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে দাঁড়িয়ে শপথ নিতে হবে যে গণতন্ত্র আজ লুণ্ঠিত, যে গণতন্ত্র আজ ভূলুণ্ঠিত সেই গণতন্ত্রকে আগামী ২১ সালের নির্বাচনে ফিরিয়ে আনার সঙ্গে সঙ্গে বাংলাকে সোনার বাংলায় রূপ দেওয়ার দূঢ অঙ্গীকার আমাদের নিতে হবে।

কোলাঘাট মন্ডল ২- এর প্রশিক্ষণ শিবিরে বিজেপি নেতা বামদেব গুছাইত, জাগরণ অধিকারী, সুপ্রকাশ রায়, মহিলা নেত্রী মহুয়া মন্ডল, মন্ডল ২- এর সভাপতি বিমল জানা, অন্যদিকে শহীদ মাতঙ্গিনী ব্লকের মন্ডল ১ এর প্রশিক্ষণ শিবিরে তপন ব্যানার্জি, দেবব্রত পট্টনায়েক, পুলক গুড়িয়া, নারায়ণ চন্দ্র মাইতি, দেবাসিশ অধিকারি প্রমূখ নেতৃত্ব উপস্থিত ছিলেন।

রাজ্য নেতৃত্ব এর পাশাপাশি জেলা ও ব্লক স্তরের নেতৃত্বরা এই প্রশিক্ষণ শিবিরে পার্টির গঠনতন্ত্র সহ আগামীদিনের কর্মীদের পথচলার বিভিন্ন দিশা উত্থাপন করেন। তমলুক জেলা বিজেপির সাংগঠনিক সভাপতি নবারুন নায়েক এক সাক্ষাৎকারে জানান যে প্রশিক্ষণ শিবির গুলি শুরু হয়েছে তা পর্যায়ক্রমে চলবে, সেই সঙ্গে কর্মীদের আগামী দিনের পথ চলার বিভিন্ন দিক গুলি রাজ্য ও জেলা স্তরের নেতৃত্বরা উপস্থাপনা করবেন।

Related Articles

Back to top button
Close