fbpx
দেশহেডলাইন

সন্ত্রাসবাদের এপিসেন্টার বেঙ্গালুরু! মন্তব্য তেজস্বী সূর্যর

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: নাম ঘোষণার ২৪ ঘণ্টার মাথায় বিস্ফোরক দাবি করে বসলেন তেজস্বী সূর্য।তরুণ এই সাংসদ দাবি করেছেন, বেঙ্গালুরু নাকি সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছে। এই অবস্থায় তিনি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের কাছে দাবি জানান, তিনি যেন ন্যাশনাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (এনআইএ)-র স্থায়ী একটি দল এখানে নিয়োগ করেন।

একটি টিভি চ্যানেলকে সাক্ষাত্‍কার দিতে গিয়ে পুনম মহাজনের স্থলাভিষিক্ত হওয়া এই যুব নেতা বলেন, ‘কয়েক বছর আগেও বেঙ্গালুরু ছিল ভারতের সিলিকন ভ্যালি। আর এখন বেঙ্গালুরু হল সন্ত্রাসবাদের এপিসেন্টার।’ এই মন্তব্য নিয়ে তীব্র প্রতিক্রিয়া দিয়েছে কংগ্রেস। কর্ণাটকের বিজেপি নেতা ডিকে শিবকুমার বলেছেন, তেজস্বী বেঙ্গালুরুর মানুষকে অপমান করেছেন। ওঁর এই মন্তব্যের জন্য এলাকায় হিংসা ছড়াতে পারে। বিজেপি এখনই ওকে বরখাস্ত করুক। রাজনৈতিক মহলের অনেকের মতে, যুব মোর্চার নয়া সভাপতির এই মন্তব্য আসলে বিজেপির জন্য বুমেরাং হবে। তাঁদের মতে কর্ণাটকে এখন বিজেপির সরকার।

বিজেপি যুব শাখার সভাপতি পদে আসার পরেই তাঁকে বলতে শোনা যায়, ভারতের সিলিকন ভ্যালি বেঙ্গালুরুতে একাধিক সন্ত্রাসবাদী মডিউল সক্রিয় হয়ে উঠেছে বিগত কয়েক বছরে। জঙ্গি সংগঠনগুলি এই শহরকে সন্ত্রাসবাদের প্রশিক্ষণ কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার করতে চায় বলেও দাবি করেছেন তিনি। এই প্রসঙ্গে অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করে দু’দিন আগেই তিনি এনআইএ দলের যথেষ্ট সদস্যদের বেঙ্গালুরুতে মোতায়েন করার আবেদন জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন: মুখ্যমন্ত্রীকে মনে করাতে চাই, আমি কারও রাবার স্ট্যাম্প নই: ধনকর

তেজস্বী সূর্য বলেন, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আশ্বাস দিয়েছেন যে তিনি যত স্বত্বর সম্ভব আধিকারিকদের একটি স্থায়ী অফিস গড়ার নির্দেশ দেবেন এবং সেখানে এসপি পদাধিকারী থাকবেন। সম্প্রতি তেজস্বী সূর্যকে সাংবাদিকদের বলতে শোনা যায়, ‘বিগত কয়েক বছরে ভারতের সিলিকন ভ্যালি বেঙ্গালুরু সন্ত্রাসবাদের এপিসেন্টারে পরিণত হয়েছে। একাধিক স্লিপার সেলের গ্রেফতারি এই শহরের সন্ত্রাসবাদের উপস্থিতি প্রমাণ দিয়েছে। গত ১১ আগস্ট এই শহরের ঘটে যাওয়া সাম্প্রদায়িক সংঘর্ষের কথা টেনে এই দাবি করেছেন তেজস্বী।

কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী ইয়েদিউরাপ্পা তেজস্বীর করা এনআইএ অফিসের দাবিকে সমর্থন করে বলেছেন, তিনি নিজেও অনেকদিন ধরে বেঙ্গালুরুতে এনআইএ-র অফিস স্থাপনের জন্য প্রধানমন্ত্রীকে দরবার করছিলেন। তবে বেঙ্গালুরুকে সন্ত্রাসবাদীদের ডেরা বলে করা তেজস্বীর মন্তব্যের প্রসঙ্গে বিজেপির অন্যতম দাপুটে নেতার সাফাই, বেঙ্গালুরুতে সন্ত্রাসবাদমূলক কাজকর্ম বেড়ে যাচ্ছে দেখেই এধরনের মন্তব্য করেছেন তরুণ নেতা। তবে কূটনৈতিক মহলের ধারণা, দলীয় সাংসদের মুখেই রাজ্যের অপবাদে বেকায়দায় পড়া বিজেপি সরকার নিজেদের অস্বস্তি ঢাকতেই ওই মন্তব্য করেছেন পাকা রাজনীতিক ইয়েদিউরাপ্পা।

Related Articles

Back to top button
Close