fbpx
কলকাতাহেডলাইন

উত্তরবঙ্গের ৭ লোকসভা আসন থেকে ৪০ টি আসন জয়ের টার্গেট স্থির করে দিল বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব

শরণানন্দ দাস, কলকাতা: একুশের বঙ্গজয়ের নীলনকশা তৈরি করতে গেরুয়া শিবিরের লম্বা সেশনের বৈঠক বসেছে রাজধানীতে। বাংলার বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বই শুধু নয় এই বৈঠকে উপস্থিত থাকছেন জেলা সভাপতি রাও। গত ২২ তারিখ থেকে শুরু হয়েছে এই বৈঠক, চলবে আগামী ২৭ তারিখ পর্যন্ত। রাজ্য নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠক করছেন রাজ্যের দায়িত্বে থাকা তিন কেন্দ্রীয় নেতা কৈলাস বিজয়বর্গীয়, শিবপ্রকাশ ও অরবিন্দ মেনন।

এখনও পর্যন্ত বৈঠকে উত্তরবঙ্গের জেলাগুলো নিয়ে পর্যালোচনায় গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে জেতা আসন ধরে রেখে আসন বাড়ানোর উপর। উল্লেখ্য উত্তরবঙ্গ রাজ্যে বিজেপির বড় ঘাঁটি। উত্তরবঙ্গ থেকে গত লোকসভা নির্বাচনে ৮ টি লোকসভা আসনের মধ্যে ৭ টি আসনে জয় এসেছিল। হার হয়েছিল কেবল মালদহ ( দক্ষিণ) কেন্দ্রে। তাই বৈঠকে ওই লোকসভা কেন্দ্রে সর্বশক্তি দিয়ে ঝাঁপানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। উত্তরবঙ্গ থেকে কেন্দ্রে মন্ত্রী হয়েছেন দেবশ্রী চৌধুরী। সূত্রের খবর, একুশের যুদ্ধে উত্তরবঙ্গ থেকে ৪০ টি আসনের টার্গেট দেওয়া হয়েছে।সেই মর্মে উত্তরবঙ্গের জেলা সভাপতিদেরও বিশেষ নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারীকে কি বাংলাদেশে প্রত্যার্পন করবে আমেরিকা? POLITICO-র তথ্যে জল্পনা

তবে শুধু উত্তরবঙ্গ নয়, বাংলার সব জেলাতেই সমান গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। একুশের মহারণের আগে এতোটুকুই ফাঁক রাখতে চাইছে না বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। সমস্ত জেলায় কোথায় শক্তি, কোথায় দুর্বলতা সবই আলোচনা হবে এই প্রায় সাতদিন ধরে চলা ম্যারাথন বৈঠকে। রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের কথায়, ‘করোনা পরিস্থিতির জন্যই কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব বাংলায় আস্তে পারছেন না। তাই আমরাই চলে এসেছি। মূলত সংগঠন, একুশের রোডম্যাপ তৈরির জন্যই এই বৈঠক। প্রত্যেক জেলা ধরে ধরে আলোচনা হচ্ছে। তাই জেলাসভাপতিরাও বৈঠকে থাকছেন।’ সুতরাং ‘ মিশন বাংলা নিয়ে বিজেপি সিরিয়াস সেটা বলার অপেক্ষা রাখছে না। ওয়ার্ম আপ শুরু হয়ে গিয়েছে, মহারণ শুরু হওয়াই যা বাকি।

Related Articles

Back to top button
Close