fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

নদী বাঁধ পরিদর্শনে বিজেপির প্রতিনিধি দল গাদিয়াড়ায়

পাপ্পা গুহ, উলুবেড়িয়া:  বৃহস্পতিবার শ্যামপুরের গাদিয়াড়ার খেঁজুরতলায় বাঁধ উপছে নদীর জল গ্রামে ঢুকেছিল। যদিও বৃহস্পতিবার জল নামতেই স্থানীয় পঞ্চায়েত ও সেচ দফতর বালির বস্তা ফেলায় শুক্রবার নদীতে জল বাড়লেও বাঁধ উপছে গ্রামে জল ঢোকেনি। এদিকে শুক্রবার বাঁধ পরিদর্শনে যান বিজেপির এক প্রতিনিধি দল। এদিন এই প্রতিনিধি দলে উপস্থিত ছিলেন বিজেপির হাওড়া গ্রামীণ জেলা সভাপতি শিবশঙ্কর বেজ, সহ সভাপতি রমেশ সাঁধুখা। এদিন বিজেপি নেতারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করার পাশাপাশি গ্রামবাসীদের সাথে কথা বলেন। পরে তারা বলেন ইতিমধ্যে বিষয়টি নিয়ে তারা সেচ দফতরের সাথে কথা বলেছেন। যাতে দ্রুত বাঁধের এই অংশ মেরামত করা হয়।

আরও পড়ুন: মানুষের জন্য কিছু করতেই সৃষ্টিকর্তা আমাকে বাঁচিয়ে রেখেছেন: শেখ হাসিনা

অন্যদিকে শুক্রবার গাদিয়াড়ায় বাঁধ উপছে জল না ঢুকলেও অনন্তপুর মিল সংলগ্ন এলাকা ও আন্টিলাপাড়া এলাকা দিয়ে গ্রামে জল ঢোকে। এদিন নদীর জলে গ্রামের পুকুর চাষের জমি রাস্তাঘাট জলমগ্ন হওয়ার পাশাপাশি একাধিক বাড়িতে জল ঢুকে যায়। পরপর দুইদিন বাঁধ উপছে গ্রামে জল ঢোকায় আতঙ্কিত হয়ে পড়ে গ্রামবাসীরা। পরে নিজেরাই উদ্যোগ নিয়ে মাটি ফেলে জল আটকানোর চেষ্টা করে। তাদের অভিযোগ কটোলের এই জল যদি এখনই বাঁধ উপছে গ্রামে ঢুকে পড়ে তাহলে ১৫দিন পর ষাঁড়াষাঁড়ি বাণ আসলে কি হবে। বিষয়টি নিয়ে শ্যামপুর ২ নং পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি জুলফিকার আলি মোল্লা জানান ইতিমধ্যে বাঁধের এই অংশ মেরামত করার জন্য সেচ দফতরকে বলা হয়েছে। তবে যদি সেচ দফতর দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহন না করে তাহলে বিপদ অবশম্ভাবী বলেও দাবি করেন সভাপতি।

Related Articles

Back to top button
Close