fbpx
হেডলাইন

টাকা ফেরৎ নেওয়াটা মুখ্যমন্ত্রীর গিমিক: অর্জুন সিং

পাপ্পা গুহ, উলুবেড়িয়া: প্রশান্ত কিশোর আসার পর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দলের নেতাদের কাছ থেকে কাটমানি ফেরৎ করিয়েছিলেন কিন্তু কজনকে গ্রেফতার করেছিলেন। টাকা নেওয়ার পর যদি কেউ সেটা ফেরৎ দেয় তাহলে কি তার অপরাধ শেষ হয়ে যায়। আসলে মমতা বন্দোপাধ্যায়ের এটা একটা গিমিক ছড়া আর কিছুই নয়।বুধবার উলুবেড়িয়া পুরসভার ১১ নং ওয়ার্ডের চেঙ্গাইলের চককাশীতে বিজেপির এক অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসে এই কথা বলেন বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং।

 

 

এদিন তিনি বলেন যদিও সত্যি টাকা ফেরৎ দিতে হয় তাহলে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় আগে টাকা ফেরৎ দিন। অভিষেক বাংলা থেকে অনেক টাকা নিয়েছে সেটা অভিষেকের আই টি ফাইল দেখলেই বোঝা যাবে বলে দাবি করেন অর্জুন। পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়েও রাজ্য সরকারের সমালোচনা করেন বিজেপি সাংসদ। তিনি বলেন এখানে লোকে বছরে ২০ হাজার টাকা রোজগার করে যেখানে অন্য রাজ্যে মাসে ২০ হাজার টাকা রোজগার করা যায় তাহলে পরিযায়ী শ্রমিকরা কেন
এই রাজ্যে থাকবেন।

 

 

 

এদিন জুন মাস পর্যন্ত রেশন দেওয়া নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ করে ২০২১ সালের জুন মাস পর্যন্ত তৃণমূল ক্ষমতায় থাকলে তবেতো উনি রেশন দেবেন। এদিন রাজ্যের শিল্প স্থাপন নিয়েও বিজেপি সাংসদ কটাক্ষ করে বলেন রাজ্যে কোনও শিল্প আসছেনা এবং যেকটা আছে সেটাও চলে যাচ্ছে। আসলে পুরানো শিল্পপতিদের জামা পাল্টে তাদের নতুন শিল্পপতি হিসাবে দেখানো হচ্ছে। এদিন অমিত মিত্রকে কটাক্ষ করে বলেন, যার কাছে ১০ টাকাও নেই তিনি রাজ্যের মানুষকে ১০ হাজার টাকার গল্প শোনাচ্ছেন। অর্জুন দাবি করেন তিনি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে রাজনীতি করে এটা বুঝেছেন তার নির্দেশ ছাড়া কিছু হয়না। দিলীপ ঘোষের উপর আক্রমণ প্রসঙ্গে অর্জুন সিং জানান তৃণমূলের পায়ের দতলায় মাটি সরে গেছে বলেই এই ধরনের আক্রমণ্ তবে শুধু বিজেপি
কর্ম্যীরাই নয় সাধারন মানুষ ও তৃণমূলের সন্ত্রাসের হাত থেকে রক্ষা পাচ্ছেনা।

 

 

অন্যদিকে নিজের বিধানসভা এলাকায় অর্জুনের বক্তব্যকে হাস্যকর বলে দাবি করেন উলুবেড়িয়া পূর্ব কেন্দ্রের বিধায়ক ইদ্রিস আলি। তিনি বলেন বিজেপি বাংলা দখলের দিবা স্বপ্ন দেখছে। তবে যেভাবে অর্জুন মুখ্যমন্ত্রী সহ বাংলার মানূষকে অপমান করছে তাতে বাংলার মানুষ তাকে ক্ষমা করবে না্। এদিনের এই অনুষ্ঠানে ২০০ জন তৃণমূল কর্মী বিজেপিতে যোগ দেয়।

 

Related Articles

Back to top button
Close