fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণদেশপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

চল্লিশ বছর বিজেপির সেবা করার এই পুরস্কার! পদ হারিয়ে ক্ষুব্ধ রাহুল সিনহা

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বাংলা থেকে যেদিন মুকুল রায় বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতির পদ পেলেন সে দিনই পদ হারালেন বিজেপির পুরনো মুখ রাহুল সিনহা। কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক পদ থেকে তাঁকে সরিয়ে দেওয়া হল। স্বাভাবিক কারণেই ক্ষুব্ধ রাহুল সিনহা। শনিবার সর্বভারতীয় স্তরে সংগঠনে রদবদল করে নতুন তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। সেই তালিকায় বোলপুরের প্রাক্তন সাংসদ অনুপম হাজরা ও রয়েছেন। তিনি সর্বভারতীয় যুগ্ম সম্পাদক হয়েছেন। রয়েছে দার্জিলিংয়ের সাংসদ রাজু বিস্তার নামও।

এদিন রাতে এক ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, ‘চল্লিশ বছর বিজেপির সেবা ও দলের একজন সৈনিক হিসেবে কাজ করে এসেছি। জন্মলগ্ন থেকে বিজেপির সেবা করার পুরস্কার এটাই যে- তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা আসছেন তাই আমাকে সরতে হবে। এর চেয়ে দুর্ভাগ্যের কিছু হতে পারে না। পার্টি যে পুরস্কার দিল তার পক্ষে বিপক্ষে কিছু বলতে চাই না।’ তিনি এরপর কিছুটা হুমকির সুরেই বলেছেন, ‘ আমি যা বলার দশ বারোদিনের মধ্যে বলবো এবং আমার ভবিষ্যৎ কর্মপন্থা ঠিক করবো।’ এই মন্তব্যের পরে জল্পনা শুরু হয়েছে তবে কি তিনি ঘাসফুলের পা বাড়াবেন? তাঁর ক্ষোভ কি অনুপম হাজরাকে ঘিরেই? কারণ তিনি এতোদিন যে পদে ছিলেন সেই পদে এসেছেন অনুপম হাজরা।

অবশ্য পূর্বসূরী অমিত শাহের আমলে তৈরি পশ্চিমবঙ্গের দায়িত্ব প্রাপ্ত তিন কেন্দ্রীয় নেতা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ( সংগঠন) শিব প্রকাশ, সাধারণ সম্পাদক কৈলাস বিজয়বর্গীয় ও জাতীয় সম্পাদক অরবিন্দ মেননকে তাঁদের পদেই পুনর্বহাল করেছেন বর্তমান সর্বভারতীয় সভাপতি জে.পি নাড্ডা। এই রদবদল একুশের লড়াইয়ে কী ভূমিকা নেয় ভবিষ্যৎ বলবে।

Related Articles

Back to top button
Close