fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

শনিবার হাওড়া শহর দাপিয়ে বেড়ালেন বিজেপি নেতৃত্ব

মনোজ চক্রবর্তী, হাওড়া : শনিবার হাওড়া শহরে দাপিয়ে বেড়ালেন বিজেপির তিন নেতা ।সায়ন্তন বসূ ,রাজু বন্দোপাধ্যায় ও সৌমিত্র খাঁ। এদিন হাওড়ার বিজেপি কর্মীদের মিথ্যা মামলা দেওয়ার প্রতিবাদে হাওড়া থানা ঘেরাও অভিযান ছিল হাওড়া সদর বিজেপি কর্মীদের। হাওড়া ময়দানে এক প্রতিবাদ সভায় আয়োজন করা হয় হাওড়া বিজেপি যুব মোর্চার পক্ষ থেকে। কিন্তু এই রাজনৈতিক কর্মসূচিকে ঘিরে পুলিশি তৎপরতা ছিল চোখে পড়ার মত।

 

হাওড়া থানার আগেই গোটা এলাকা গার্ড রেল , ব্যারিকেড দিয়ে ঘিরে দেওয়া হয়। মোতায়েন করা হয় কমব্যাট ফোর্স। ছিল জল কামান ও বিশাল পুলিশ বাহিনী।এক কথায় পুলিশী নিরাপত্তায় ঘিরে ফেলা হয় থানাকে।এদিন এই কর্মসূচিতে এসে বিজেপির রাজ্য সহ সভাপতি রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়ের অভিযোগ করে বলেন , করোনা পরিস্থিতিতেও তৃণমূল সাধারণ মানুষকে ঘরে থাকতে দিচ্ছেন না। তাই মানুষ বিজেপির কর্মসূচিতে যোগদান করছেন স্বতঃস্ফূর্ত ভাবে। পুলিশকে ব্যবহার করে তৃণমূল যে সন্ত্রাস চালাচ্ছে তার অবসান হতে চলেছে বলে মন্তব্য করেন তিনি ।

অন্যদিকে সায়ন্তন বসু হুঙ্কার দিয়ে বলেন, ” আমাদের যা কার্যকর্তা মজুত ছিল তাতে আজই হাওড়া থানা গুঁড়িয়ে দেওয়া যেত। কিন্ত এরপর নতুন থানা বানানোর বরাত দলীয় তৃণমূল কর্মীরা পেত। সেখান থেকেও কাটমানি খেতো। ইট চুন সুরকি সাপ্লাই করে টাকা রোজগার করত তৃণমূল । তাই সেটা করলাম না”।অন্যদিকে এদিন যূব মোর্চার সভাপতি সৌমিত্র খাঁ জানান ,
“বছর ঘুরলেই রাজ্যে বিধানসভা ভোট। তার আগেই নভেম্বরে এ রাজ্যে জারি হতে চলেছে রাষ্ট্রপতি শাসন”। হাওড়া ময়দানে এসে এমনই বিস্ফোরক মন্তব্য করেন বিজেপির সাংসদ তথা যুব মোর্চা সভাপতি সৌমিত্র খাঁ। তিনি বলেন , “হাওড়া জেলা তৃণমূলে অরূপ- রাজীব কোন্দল ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে। আপনারা শুধু নভেম্বর মাস আসতে দিন , এই বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করা হবে”। যদিও তাঁর এহেন মন্তব্যের পরই শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপানউতোর। কারণ কয়েক মাস পরেই মেয়াদ শেষ হচ্ছে রাজ্যের বর্তমান শাসক দল তৃণমূলের সরকারের। কিন্তু তার আগেই যদি বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি হয় তবে তা হবে বর্তমান বাংলার রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ।

যদিও বিজেপি সাংসদের এই হুশিয়ারিকে গুরুত্ব দিতে নারাজ রাজ্যের সমবায় মন্ত্রী অরূপ রায়। পাল্টা তার দাবি, “আগে বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করে দেখুক বিজেপি। তারপর দেখবে কিভাবে বাংলা উত্তাল হয়। আর তাছাড়া দেশে হাই কোর্ট আছে, সুপ্রিম কোর্ট আছে। বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করার মত পরিস্থিতি আদৌ তৈরি হয়েছে? প্রতি নিয়ত উত্তাল হয় বাংলা? নাকি প্রত্যহ ৫০ /৫০ টা করে খুন হয়? রাষ্ট্রপতি শাসন জারি করার নিয়ম কানুন আছে। সেটা জানা নেই বলেই এই কথা বলছেন “।
এর পাশাপাশি সৌমিত্র খাঁ কে কটাক্ষ করে অরূপ রায় বলেন, ,”কে কোন চুনোপুঁটি কি মন্তব্য করছে তা নিয়ে মাথা ঘামাতে রাজি নই। বিজেপি নিজেই তার ক্ষমতার অপব্যবহার করছে”।তবে শনিবার হাওড়া শহরে বি জে পি যে ভোট ময়দানে নেমে পড়েছে তা প্রমানিত বলে অভিমত ওয়াকিবহাল মহলের ।

Related Articles

Back to top button
Close