fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

কর্মীদের বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাট করা হচ্ছে, অভিযুক্তদের গ্রেফতারের দাবিতে পথ অবরোধ বিজেপির যুব মোর্চার  

নিজস্ব সংবাদদাতা দিনহাটা: বিধানসভা ভোটের দিন এখনো ঘোষণা না হলেও সময় যত এগিয়ে আসছে বিজেপি কর্মীদের বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাট করা হচ্ছে বলে অভিযোগ তুলে অভিযুক্তদের গ্রেফতারের দাবিতে  ভেটাগুড়ি তে পথ  অবরোধ করল বিজেপির যুব মোর্চা।

সংগঠনের পক্ষ থেকে দিনহাটা কোচবিহার রাজ্য সড়ক ভেটাগুড়িতে শনিবার বেলা দেড়টা নাগাদ এই অবরোধ শুরু হলে ব্যাপক আলোড়ন ছড়িয়ে পড়ে। এদিন অবরোধের ফলে বন্ধ হয়ে যায় দিনহাটা কোচবিহার  যান চলাচল।সমস্যায় পড়তে হয় নিত্যযাত্রী থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষকে। হঠাৎ করে পথ অবরোধের ফলে নিত্যযাত্রীদের অনেকেই ক্ষোভ উগরে দেয় রাজনৈতিক দলগুলোর উপর। এদিনের এই অবরোধ চলাকালীন  নেতৃত্ব দেন যুব মোর্চার কোচবিহার জেলা সভাপতি অজয় সাহা, প্রাক্তন জেলা সভাপতি সমীর রায়, মুন্না সাউ প্রমুখ নেতৃত্ব। এদিন ভেটাগুড়িতে দিনহাটা  কোচবিহার রাজ্য সড়ক  অবরোধের খবর পেয়ে দিনহাটা থেকে বিশাল পুলিশবাহিনী সেখানে ছুটে যায়। পুলিশের তরফ থেকে অবরোধকারীদের সঙ্গে আলোচনার পর পুলিশের আশ্বাস পেয়ে অল্প সময়ের  মধ্যে কত অবরোধ উঠে যায়।

অবরোধ প্রসঙ্গে যুব মোর্চার জেলা সভাপতি অজয় সাহা বলেন, দিন কয়েক আগে  তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা ভেটাগুড়ির সিঙ্গিজানি গ্রামে বিজেপির বুথ  সভাপতি অমল মন্ডল ও দলীয়  কর্মী জয়নাল মিয়ার বাড়িতে ভাঙচুর ও লুটপাট চালায়। পুলিশকে লিখিত অভিযোগ জানানো সত্ত্বেও  দোষীদের গ্রেফতার করছে না পুলিশ। পুলিশ রাজ্যের শাসক দল তৃণমূলের হয়ে কাজ করছে। এর বিরুদ্ধে এই অবরোধ। অবিলম্বে দোষীদের গ্রেফতার করা না হলে  বৃহত্তর আন্দোলনে নামার হুমকি দেন সংগঠনের নেতৃত্ব।

তৃণমূলের ভেটাগুড়ি দুই অঞ্চল সভাপতি সুনীল রায় সরকার, তৃণমূল নেতা বিশ্বনাথ দে আমিন প্রমুখ বলেন, বিজেপি নিজেদের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বকে ধামাচাপা দিতে নিজেদের কর্মীদের বাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা তৃণমূলের ঘাড়ে চাপিয়ে বিধানসভা ভোটের আগে মানুষকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছে। মিথ্যা অভিযোগ তুলে দিন অবরোধ করে সাধারণ মানুষকে হয়রানি করে বিজেপি। মানুষ তাদের উপযুক্ত জবাব দেবে আগামী বিধানসভা নির্বাচনে বলেও তৃণমূল নেতৃত্ব পাল্টা হুঁশিয়ারি দেন।

Related Articles

Back to top button
Close