fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

লকডাউনে অস্বাভাবিক বিদ্যুৎ বিলের প্রতিবাদে বিদ্যুৎ পর্ষদের অফিস ঘেরাও অভিযান বিজেপির

জয়দেব লাহা, দুর্গাপুর: করোনা আবহে চলছে লকডাউন। কর্মহীন বহু মানুষ। টান পড়েছে সংসারে। চরম সঙ্কটের মুখে রাজ্যবাসী। এই দুর্দিনে অস্বাভাবিক বিদ্যুৎ বিল চোখে সর্ষে ফুল দেখছে বঙ্গবাসী। আর তার প্রতিবাদে সরব হয়েছে গেরুয়া শিবির।

শুক্রবার সারা রাজ্যের সঙ্গে দুর্গাপুর, পানাগড় শিল্পাঞ্চলে রাজ্য বিদ্যুৎ পর্ষদের দফতর ঘেরাও করল স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্ব। এদিন দুর্গাপুরের বিধাননগর, সিটিসেন্টার, ডিপিএল এবং পানাগড়, গোপালপুর, বুদবুদেও বিদ্যুৎ দফতর অফিস ঘেরাও করে বিজেপিকর্মী সমর্থকরা। পানাগড়, বুদবুদে বিদ্যুৎ আধিকারিকের অফিসের সামনে অবস্থান বিক্ষোভ শুরু করে গেরুয়াবাহিনী। নেতৃত্বে ছিলেন বিজেপির পুর্ব বর্ধমান জেলা সহ সভাপতি রমন শর্মা। অন্যদিকে দুর্গাপুর শিল্পশহরে ঘেরাও অভিযানের নেতৃত্বে ছিলেন বিজেপির পশ্চিম বর্ধমান জেলা সভাপতি লক্ষন ঘোড়ুই। এছাড়ও ছিলেন গুনিজন সেলের অমিতাভ ব্যানার্জী।

লক্ষ্মণবাবু জানান,” লকডাউনে সাধারন মানুষ সঙ্কটজনক পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে। কেন্দ্র সরকার রেশনে খাদ্যশস্য বিনামুল্যে দিচ্ছে। উজ্জ্বালা যোজনায় গ্যাস বিনামুল্যে দিচ্ছে।জনধন যোজনার অ্যাকাউন্টে মাসে ৫০০ টাকা দিচ্ছে। সঙ্কট মোকাবিলায় পর্যাপ্ত ১০০ দিনের কাজ দিচ্ছে। আর রাজ্যের তৃণমূল সরকার মানুষকে ভাঁওতা দিচ্ছে। কেন্দ্রের দেওয়া প্রকল্প নকল করে নিজের নামে চালাচ্ছে। দুর্দিনে অস্বাভাবিক বিদ্যুৎ বিল গরিব মানুষকে পাঠাচ্ছে। দেশের অন্যান্য রাজ্যের তুলনায় ৩-৪ গুন বিদ্যুৎ মাশুল বেশী। যার ফলে চোখে সর্ষে ফুল দেখছে পশ্চিমবঙ্গবাসী। তাই আমাদের দাবী করোনা আবহে বিদ্যুতের অস্বাভাবিক মাশুল কম করুক এবং কমপক্ষে তিনমাসের বিদ্যুৎ বিল মুকুব করুক রাজ্য সরকার।”

Related Articles

Back to top button
Close