fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

শহরের হোমে ধর্ষকের লালসার শিকার দৃষ্টিহীন তরুণী! অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার পর দায়ের অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: এক দৃষ্টিহীন তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে এক অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করল পুলিশ। বেহালার হরিদেবপুরের এক হোমে এই ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ। যদিও ঘটনাটি জানুয়ারি মাসে ঘটলেও ওই তরুণী পুরুলিয়ায় নিজের বাড়িতে চলে গিয়েছিলেন। তরুণীর পরিবার পুরুলিয়া জেলা পুলিশে অভিযোগ জানালেও ঘটনাটি হরিদেবপুর থানা এলাকায় ঘটেছে বলে মামলাটি হরিদেবপুর থানায় পাঠানো হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত শুরু করেছে হরিদেবপুর থানার পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত জানুয়ারি মাসে হরিদেবপুরের ওই হোম থেকে চলে যান নির্যাতিতা । তরুণী পুরুলিয়ায় তাঁর বাড়িতে ফিরে যাওয়ার পর অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন। জানা গিয়েছে, বাড়ি ফিরে গেলে প্রথমেই ধর্ষণের বিষয়ে কাউকেই কিছু জানাননি দৃষ্টিহীন ওই তরুণী । কিন্তু অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ায় বিষয়টি জানাজানি হয়ে যায় । তারপর পরিবারের তরফে স্থানীয় থানায় অভিযোগ দায়ের করেন । তদন্ত শুরু করে পুরুলিয়া জেলা পুলিশ জানতে পারে, হরিদেবপুরের হোমেই তাঁকে ধর্ষণ করা হয়েছে । তারপরই এদিন মামলা স্থানান্তর করা হয় হরিদেবপুর থানায়।

পুলিশ সূত্রে খবর, পুরুলিয়া জেলা থেকে মামলাটি আসার পর ওই হোমে যান হরিদেবপুর থানার অফিসারেরা। সেখানে হোম কর্তৃপক্ষকে জিজ্ঞাসাবাদ করে জানা গিয়েছে, গত নভেম্বর মাসে হরিদেবপুরের হোম থেকে একবার বাড়িতে চলে যান ওই তরুণী। তারপর কিছুদিন বাদেই ফিরে এসে জানুয়ারিতে আবার পুরুলিয়ায় চলে যান। তারপর থেকে তিনি আর হরিদেবপুরে ফেরেননি। এর পরেই তার অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার বিষয়টি জানা যায়। কিন্তু কলকাতায় এমন গুরুতর বিষয় ঘটে থাকলে এতদিন কেন সেই তরুণী কাউকে কিছু জানালেন না, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। আদৌ বিষয়টি কলকাতায় ঘটেছে না কি পুরুলিয়ায়, তা নিয়েই ধন্দে পুলিশ অফিসাররা। যদিও সম্ভাব্য সমস্ত সূত্র খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে এতদিন পরে কোনও সূত্র পাওয়া কঠিন বলে দাবি তদন্তকারীদের। পাশাপাশি তিনি দৃষ্টিহীন হওয়ায় ধর্ষকের বিষয়ে কোনও কিছু জানাতে পারেননি তিনি। ফলে অভিযুক্তকে খুঁজে বের করতে বেগ পেতে হচ্ছে পুলিশকে ।

Related Articles

Back to top button
Close