fbpx
অফবিটব্লগ

বলা বারণ

দিগন্ত রায়চৌধুরী: দুপুরবেলা খেয়ে দেয়ে আঁচিয়ে উঠতে উঠতেই হঠাৎ মোবাইল স্ক্রীনে ভেসে এল একটা খবর- মুম্বাই ফিল্ম দুনিয়ার এক তারকা তারকা সিংহ সুইসাইড করেছেন। একে তারকা তায় আবার সুইসাইড , এক লহমায় জুকারবার্গ ইন্সটিটিউশন পরিণত হল মেনটাল হসপিটালে। প্যানডেমিকের এর সময়, রাজ্য কেন্দ্র পটাপট কোভিড হসপিটাল খুলে ফেলছে তাই এত তাড়াতাড়ি মেনটাল হসপিটাল খুলে যাওয়ায় তারাও হয় তো খুব একটা খুশি নয়। যাই হোক আমরা মূল আলোচনায় ফিরে আসি। আত্মহত্যা কেন? তাও আবার এত so called সফল মানুষের ? Depression নিশ্চয়ই। হুঃ হুঃ বাবা এখন খুব নিম্নচাপ চলছে। ভরা বাজার- আম্পান, নিসর্গ , সুশান্ত সিং রাজপুত- লিস্টি টা শেষ হছে না মোটেই। বিস্বাস নেই কয়েকদিন পর আবার রাত আটটায় ঘোষণাও শুনতে পারেন- নিম্নচাপ মোকাবিলায় মৌসম ভবন আর রাঁচির যৌথ দল বাড়ি বাড়ি গিয়ে সার্ভে করবে।

যাই হোক ঘটনার পর থেকে মিডিয়া- তা সে electronic ই হোক বা social সবার এক বক্তব্য দুঃসময়ে কথা বলুন বা শুনুন- ইত্যাদি ইত্যাদি। আচ্ছা আপনার পা ভাঙলে বা বুক ধড়ফড় করলে কী করেন? বাবা- মা-বন্ধু- দিদি-ভাই কে জড়িয়ে ধরেন না অভিজ্ঞ ডাক্তার এর কাছে যান – পরামর্শ নিতে, হসপিটালে যান তাই তো? মন গোমড়া হলে কি করবেন? ছুটবেন মনের ডাক্তারের কাছে মনের হদিশ পেতে? তাই তো করা উচিৎ। তুলানামুলক বিশ্লেষণে যাচ্ছি না তবে সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসার কি বন্দোবস্ত আছে সেটা সকলেরই জানা ( একটা দুটো উদাহরণ গ্রাহ্য নয়) আর প্রাইভেট? দেশের বেশির ভাগ ক্ষেত্রে প্রাইভেট ডাক্তারদের আকাশছোঁয়া দক্ষিণা কত মানুষ afford করতে পারবেন সে তথ্য জানার জন্য আইনস্টাইন হওয়ার ফরকার নেই। যে দেশে proper trauma care centre অস্বাভাবিক অপ্রতুলতার জন্য সামান্য রোড এক্সিডেন্টের রুগীকেও বাঁচান সম্ভব হয়না সেখানে হবে আমার ১৪ বছরের আগের childhood trauma র চিকিৎসা ? লোক হাসাবেন না মশাই, please. Oxymoron শুনেছেন? না শুনে থাকলে গুগল করে দেখে নিন আর তার সাথে vocabularyতে আর একটা যোগ করে নিন- মানসিক স্বাস্থ্য ( তাও আবার ভারতে)।

আচ্ছা জামলো মাকদমের depresion হয়নি? ১২ বছর বয়সে রাষ্ট্রের অযাচিত খেয়ালে ১৫০ কিলোমিটার হাঁটার পরেও না? জামলোর বাবা মা এর মানসিক স্বাস্থ্য ক্যামন আছে? মেয়েকে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়তে দেখার পরেও কেমন আছেন তারা? ডাক্তারবাবুদের অনুরোধ রইল কখনো সময় পেলে দেখে আসবেন।
আসলে জীবন যখন সংখ্যায় পর্যবসিত হয় তার থেকে অপমানের বোধহয় আর কিছু হয় না।

………..বিদায় সারফারাজ.

 

Related Articles

Back to top button
Close