fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

করোনায় মৃত্যু যুবকের, দুদিন হাসপাতালের মর্গে পড়ে রইল দেহ

মিলন পণ্ডা, এগরা (পূর্ব মেদিনীপুর): করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় এক যুবকের। টানা দুইদিন যুবকের মৃতদেহ হাসপাতালের মর্গে পড়ে রইল। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার এগরা সুপার ফেসিলিটি হাসপাতাল।

মৃত যুবকের বাড়ি এগরা দু’নম্বর ব্লকের উত্তর ভাড়দা গ্রামে। ঘটনার খবর প্রকাশ্যে আসতেই গোটা এগরা মহাকুমায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে।

স্বাস্থ্য দপ্তর ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, দু’নম্বর ব্লকে উত্তর ভাড়দা গ্রামের ওই যুবক কর্মসূত্রে কলকাতায় থাকতো। গত কয়েকদিন আগে কলকাতা থেকে এগরায় বাড়ীতে ফেরে ওই যুবক। তারপরে ওই যুবকের জ্বর ও শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। পরিবারের লোকেরা উদ্ধার করে এগরা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে ভর্তি করেন।

হাসপাতাল থেকে ওই যুবকের লালারস সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ওই যুবক করোনা আক্রান্ত বলে জানিয়ে দেয় স্বাস্থ্যদপ্তর। রিপোর্ট আসার কিছুক্ষণের মধ্যেই ওই যুবকের হাসপাতালে মৃত্যু হয়।

এরপর মৃতদেহটি পরিবারের সদস্যদের দিতে অস্বীকার করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। করোনায় মৃত্যু হলে সরকারি মতে সৎকার করা হয়। তাই দীর্ঘক্ষণ হাসপাতালের মর্গে মৃত দেহটি পড়ে রয়েছে। জেলায় করোনা মৃত্যু কারোর সৎকার করার জন্য কোনও শ্মশান নেই। তাই অন্য কোথাও নিয়ে গিয়ে সৎকার করতে হবে। মৃত যুবকের পরিবারের সদস্যদের লালারস করা হবে বলে জানা গিয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close