fbpx
কলকাতাহেডলাইন

ব্রাত্য শোভন! নাম নেই, তাঁর হাইপ্রোফাইল ‘বান্ধবীর’, তবে কি এবার ঘর ওয়াপসি!

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: দিদির প্রিয় কানন ঘাসবাগান ছেড়ে পদ্ম-নামাবলী চাপিয়েছেন। ঢাকঢোল পিটিয়ে বেশ জামাই আদর পেয়ে গেরুয়া শিবিরে প্রবেশ করেছিলেন। নতুন রাজ্য কমিটির তালিকা প্রকাশ করেছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বিশেষ করে তৃণমূল আসাদের নেতা-জনপ্রতিনিধি তারকাদের গুরুত্ব দেওয়া। কিন্তু ব্রাত্য থেকে গেলেন শোভন। নতুন রাজ্য কমিটি ঘোষণা সেখানে কোথাও নেই শোভনবাবুর নাম! নাম নেই, তাঁর হাইপ্রোফাইল ‘বান্ধবী’ বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়েরও। বিজেপিতে গিয়েও সক্রিয় ভাবে তাঁকে দলে কাজে দেখা যায়নি। তাঁকে নিয়ে আজ ও জোর জল্পনা যে কোনোদিন তিনি দল ছাড়তে পারেন।

অথচ মুকুলের পর তৃণমূলের সবথেকে হেভিওয়েট শোভনই বিজেপিতে যোগদান করেছিলেন। এবং কলকাতা পুরসভার মুখ করে তোলার মতো একজন নেতা পেয়েছিল বিজেপি। তবে কেন এহেন ব্রাত্য করা হলো শোভন বৈশাখীকে। অনেকের মতে, তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে গিয়েও শোভন চট্টোপাধ্যায় সক্রিয় হননি। এখনও তিনি তৃণমূলমুখীই রয়ে গিয়েছেন। বিজেপি শতচেষ্টা করেও তাঁকে আসরে নামাতে পারেননি। কলকাতা পুরসবার মুখ করতে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব পর্যন্ত শোভনকে সামনে আনতে চেয়েছিলো কিন্তু সুফল মেলেনি। পাশাপাশি বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যেতে পারেন এই আশঙ্কাও রয়েছে। সেই কারণেই নাকি পদ দেওয়া হয়নি।

আরও পড়ুন: লক্ষ্য একটাই ২০২১, আমরা সবাই এক ছাতার নিচে, ছাতার নাম নরেন্দ্র মোদি: অগ্নিমিত্রা

উল্টে, মান-অভিমান ভুলে তিনি ছুটে যান যে তৃণমূল নেত্রীকে ফেলে এসেছেন, সেই দিদির কাছেই ভাইফোঁটা নিতে। এরপর বারেবারেই জল্পনা ছড়িয়েছে কানন-এক্সপ্রেস আবার ঘাসফুল শিবিরে ‘ব্যাক’ করছে! কখনো মেয়র পদে পুনঃপ্রতিষ্ঠা, কখনো মন্ত্রীপদ ফিরিয়ে দেওয়া – একের পর এক জল্পনা ছড়িয়েছে! তাঁর বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যের একাধিক একান্ত আলোচনার পরে সেই জল্পনা আরও গতি পেয়েছে! আর বিজেপির এই রাজ্য কমিটি ঘোষণার পর তো জল্পনা তুঙ্গে!রাজনৈতিক মহলের প্রশ্ন তবে কি শোভনকে ঘুরিয়ে দল ছাড়ার বার্তা দিলো বিজেপি। বুঝিয়ে দিলো সে দলে থাকায় যা না থাকায় তাই। ইচ্ছে হলেই ফের ফিরে যেতে পারে। বিজেপির রাজ্য কমিটিতে ঠাঁই না পাওয়ার পরেই এবার গেরুয়া শিবিরে শোভন-বৈশাখীর ভবিষ্যত্‍ নিয়ে উঠে গেল বড়সড় প্রশ্ন!

Related Articles

Back to top button
Close