fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

আগামী সপ্তাহ থেকে চলবে বেসরকারী ও মিনিবাস, গুনতে হবে দু থেকে তিনগুন ভাড়া

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্কঃ বুধবার থেকে শহর ও শহরতলীতে বাস চলতে শুরু করেছে। এবার জানা যাচ্ছে লকডাউনের চতুর্থ পর্যায়ের প্রথম দিন থেকেই শহরের পথে নামবে বেসরকারি বাস । শহরের বেশ কয়েকটি রুটে বাসগুলি চালানো হবে । তবে সেক্ষেত্রে ভাড়া বাড়বে কোথাও দ্বিগুণ, কোথাও আবার তিনগুণ । সূত্রের খবর, শুক্রবার নতুন ভাড়ার তালিকা প্রকাশ হতে পারে । তবে কন্টেইনমেন্ট জোনগুলিতে এখনই বাস চালানো হবে না ।

 

 

বাস চালানো এবং বাসের ভাড়া সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বুধবার বাস এবং মিনিবাস এ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে আলোচনায় বসেন পরিবহন মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী । বৈঠক শেষে তিনি সোমবার থেকে বাস নামানোর বিষয়ে সবুজ সংকেত দেন । তবে মন্ত্রী জানিয়েছেন, বাস ভাড়ার বিষয়ে সমস্ত সিদ্ধান্ত নেবেন বাস মালিক সংগঠন । তবে সরকারি বাসের ভাড়া অপরিবর্তিত থাকবে বলেই জানিয়েছেন তিনি । এমনকি কোনও বাসে ২০ জোনের বেশি যাত্রী নেওয়া যাবে না বলে আবার স্পষ্ট করেছেন তিনি । উল্লেখ্য, লকডাউনের আগে বাসের পা দিলেই ন্যূনতম ভাড়া গুনতে হত ৭ টাকা। তারপর প্রতি স্টেজে ভাড়া বেড়েছে এক টাকা করে কলকাতা শহরের ক্ষেত্রে। জেলার ক্ষেত্রে বাসের ভাড়া ন্যূনতম ৭ টাকাই আছে। তারপরে প্রতি কিলোমিটারে সাধারণ বাসের ক্ষেত্রে ভাড়া বাড়ে ৭০ পয়সা করে। এক্সপ্রেস বাসের ক্ষেত্রে ভাড়া বাড়ে ৭৫ পয়সা করে।

 

 

জ্বালানির ভাড়া তুলতে বাস মালিকরা ভাড়া বাড়িয়ে দিতে চাইছেন এক লাফে দ্বিগুণেরও বেশি। বাস মালিকদের দাবি, ন্যূনতম ভাড়া ২৫-৩০ টাকা পর্যন্ত করতে হবে। এরপর কিলোমিটার অনুযায়ী ধাপে ধাপে ভাড়া বাড়বে। আর এর জেরে বেকায়দায় পড়েছেন যাত্রীরা। এতটা ভাড়া বাড়লে, কীভাবে দিন আনা দিন খাওয়া পরিবারের সদস্যরা কাজে বেরোবেন? প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।

বাস সংগঠনের নেতা রাহুল চ্যাটার্জি জানিয়েছেন, “মুখ্যমন্ত্রী ও পরিবহণ মন্ত্রীকে চিঠি দিয়ে আমাদের অসুবিধার কথা জানান হয়েছে।” রাজ্য সরকারের ভাড়া বৃদ্ধির সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানালেও, বাস সংগঠন নেতা তপন বন্দোপাধ্যায়ের দাবি, “কেন্দ্র লকডাউন না তুললে, লোকাল ট্রেন না চালালে যাত্রী হবে না বাসে । তাই ভাড়া বৃদ্ধি করেও আদৌ কতটা লাভ হবে তা বুঝতে পারছি না ।”

Related Articles

Back to top button
Close