fbpx
কলকাতাগুরুত্বপূর্ণহেডলাইন

ক্যাফেতে গুলি-বোমাবাজির ঘটনায় হুগলির বৈঁচি থেকে গ্রেফতার তিন অভিযুক্ত

অভীক বন্দ্যোপাধ্যায়,কলকাতা: খাস কলকাতায় দাদাগিরি করে ক্যাফের সামনে বোমা গুলি চালিয়ে এবং বন্দুকের বাঁট দিয়ে ক্যাফে ম্যানেজারকে ঘায়েল করে চম্পট দিয়েছিল তিন অভিযুক্ত। ঘটনার তদন্তে নেমে হুগলির বৈঁচি থেকে নাটকীয় পদ্ধতিতে তিন অভিযুক্তকেই গ্রেফতার করল কড়েয়া থানার পুলিশ। অভিযুক্ত নিশাত হায়দার, মহম্মদ শাহনওয়াজ হোসেন ও মহম্মদ মাসুকের কাছ থেকে উদ্ধার হয়েছে আগ্নেয়াস্ত্রও।

পুলিশ সূত্রে খবর, ১৭ সেপ্টেম্বর রাত দেড়টা নাগাদ নাসিরুদ্দিন রোডের নিশাত হায়দার নামে বছর পঁচিশের ওই যুবক আরও তিন জনের সঙ্গে কলকাতার ওই হুক্কা বারে যায়। হুক্কা বারে ঢুকেই মালিক রাহুল সিংয়ের খোঁজ করতে করলেও তিনি তখন ছিলেন না। তাই ওই যুবকদের সঙ্গে কথা বলতে এগিয়ে আসেন ম্যানেজার মহম্মদ আমিন ও তৌসিফ রাজা। অভিযোগ, ওই যুবকেরা ম্যানেজারের সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে পড়ে। বন্দুকের বাঁট দিয়ে ম্যানেজারকে আঘাত করা হয় । বেরনোর সময় হুক্কা বারের সামনে পরপর চারটি বোমা ফাটানো হয়। শূন্যে তিন রাউন্ড গুলিও চালায় অভিযুক্তরা। রাতেই কড়েয়া থানায় অভিযোগ দায়ের করা হলে তদন্তে নামে পুলিশ।

এরপরই বৈচির বাসিন্দা শেখ রুস্তমের বাড়িতে অভিযুক্ত নিশাত হায়দার, মহম্মদ শাহনওয়াজ হোসেন ও মহম্মদ মাসুক গা-ঢাকা দেয়। মঙ্গলবার রাতেই পুলিশ সেখানে হানা দিলে ব্যালকনি থেকে ঝাঁপ দিয়ে একটি কচুরিপানা ভরা পুকুরে গা ঢাকা দেয় অভিযুক্তরা। বাড়ির মালিক শেখ রুস্তামকে জেরা করা হলে তিনি জানান, সামনের ডোবায় লুকিয়েছে নিশাত হায়দাররা। সঙ্গে সঙ্গে জায়গাটি ঘিরে ফেলে বিশাল বাহিনী। সেখান থেকেই সমস্ত আগ্নেয়াস্ত্র সহ গ্রেফতার করা হয় তিন যুবককে।

Related Articles

Back to top button
Close