fbpx
আন্তর্জাতিকহেডলাইন

এক সপ্তাহ ধরে গণধর্ষণে মৃত্যু বিড়াল ছানার, প্রকাশ্যে এল পৈশাচিক পাকিস্তান

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: নরকীয় অত্যাচার পৈশাচিক ঘটনার সাক্ষী রাখল পাকিস্তান। নরকীয় যন্ত্রণা সহ্য করেছিল বিড়াল ছানাটি। তার শরীরের ভিতরের বিভিন্ন অঙ্গ ছিঁড়ে ফেটে যায় । ছানাটির দেহ থেকে প্রচুর পরিমাণ রক্ত ও বীর্য পাওয়া যায় । ঘটনাটি ঘটে পাকিস্তানের লাহোরে । সেখানে একটি বিড়াল ছানাকে গণধর্ষণ করা হল । ঘটনায় অভিযুক্ত ১৫ বছরের এক কিশোর ও তার বন্ধুরা।

পাকিস্তানের একটি পশু সুরক্ষা সংগঠন, JFK Animal Rescue And Shelter পুরো ঘটনাটি ফেসবুকে বিস্তারিত পোস্ট করার পর ঘটনাটি খবরের আলোয় আসে । জানা গিয়েছে, ওই কিশোরের বাবা-মা বিড়ালটিকে বাড়িতে নিয়ে এসেছিলেন । এরপরেই টানা ১ সপ্তাহ ধরে বন্ধুদের সঙ্গে মিলে বিড়ালটিকে গণধর্ষণ করে ওই নাবালক । সেখান থেকেই তাকে উদ্ধার করে ওই মহিলা চিকিৎসক । তিনি জানান, বিড়াল শাবকটি এতটাই যন্ত্রণা পেয়েছিল যে, সে হাঁটতে পারছিল না, খেতে পারছিল না, বসতে পারছিল না, শুতেও পারছিল না । মারাত্মক ট্রমার মধ্যে ছিল সে ।

আরও পড়ুন: তীব্র খাদ্যাভাবে আফ্রিকা, সাড়ে ৪ কোটির কান্নায় ভিজছে কালাহারি

শেষে সমস্ত কুকীর্তি ফাঁস করে দেওয়ার ভয় দেখানো হলে, ওই নাবালক ধর্ষক সমস্ত কথা স্বীকার করে নেয় । এরপরেই ওই চিকিৎসক পশু সুরক্ষা সংগঠন, JFK Animal Rescue And Shelter-এর পেসবুক পেজে গিয়ে গোটা ঘটনাটি বিস্তারিত লেখেন । তিনি লেখেন, ‘‘এটা হল পাকিস্তান । আর এটাই হল পাকিস্তানের পুরুষরা । এরা এখন মহিলা আর শিশুদের পর পশুদেরও ধর্ষণ করছে । কে এই ছোট্ট শাবকটিকে ন্যায় দেবে । যেখানে আমাদের নারী আর শিশুরাই ধর্ষিত হওযার পর কোনও বিচার পায় না ।’’ উল্লেখ্য, এই প্রথম নয় পাকিস্তানে এর আগে এই ধরনের পশু ধর্ষণের ঘটনা একাধিকবার সামনে এসেছে। এবারও এই ঘটনায় হতচকিত গোটা বিশ্ব।

Related Articles

Back to top button
Close