fbpx
কলকাতাহেডলাইন

ভারতকে ভয় দেখানোর চেষ্টা করলে চিন উচিত শিক্ষা পাবে: দিলীপ ঘোষ

শরণানন্দ দাস, কলকাতা: লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় ভারত চিন সঙ্ঘর্ষ ঘিরে উত্তপ্ত দেশের রাজনীতি। শুক্রবার প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সর্বদলীয় বৈঠক করেছেন। আর শনিবার সাতসকালে চায়েপে চর্চা’য় চিনের বিরুদ্ধে সুর চড়ালেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি স্পষ্ট বললেন, ‘ ভারতকে ভয় দেখানোর চেষ্টা করলে চিন উচিত শিক্ষা পাবে। ‘ এদিন উত্তর কলকাতার সীতারাম ঘোষ স্ট্রিটে চায়ে সে চর্চায় যোগ দেবার পর তিনি পশ্চিম মেদিনীপুরে নিহত দলীয় কর্মী পবন জানার শেষযাত্রায় যোগ দিতে দাঁতন রওনা হয়ে যান।

‘এদিন চায়েপে চর্চা’য় ১৯৫৭র মতো ভারত চিনকে আক্রমণ করবে কিনা জানতে চাইলে কৌশলী উত্তর দেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি। তিনি বলেন, ‘ সব কিছুই স্যাটেলাইটে ধরা পড়ে। বালাকোটের বিমান হামলার প্রমাণও রয়েছে। সময় সবকিছুর জবাব দেবে।’ একইসঙ্গে তিনি চিনের উদ্দেশ্যে হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, ‘ ভারতকে ভয় দেখানোর চেষ্টা করলে চিন উচিত শিক্ষা পাবে।’ প্রসঙ্গত গত বুধবার রাতে দাঁতনের চক ইসমাইল পুর গ্রামপঞ্চায়েতের কুসুমিত গ্রামে গৃহসম্পর্ক অভিযান সেরে রাতে বাড়ি ফেরার পথে বিজেপির তরুণ কর্মী পবন জানাকে দুষ্কৃতীরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে হামলা করে। এই হামলার জেরেই পবন জানার মৃত্যু হয়। বিজেপির অভিযোগ হামলা চালিয়েছে তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা।

আরও পড়ুন: যদি কিছু না ঘটে থাকে, তাহলে উত্তেজনা প্রশমন করার চেষ্টা কেন? মোদিকে প্রশ্ন মহুয়ার

এদিন দাঁতন যাওয়ার আগে দিলীপ ঘোষ বলেন,’ মেদিনীপুরে আমাদের দলীয় কর্মীকে নৃশংসভাবে খুন করা হয়েছে। সঙ্কটের সময়ে যারা এমন ঘৃণ্য কাজ করে তাদের সেই ভাষাতেই উত্তর দেওয়া হবে।’ শুক্রবারই অবশ্য তিনি দলীয় কর্মীদের বার্তা দিয়েছেন, ‘ বদলাও হবে, বদলও হবে।’ যা থেকে এটা স্পষ্ট একুশের লড়াইয়ে সূচ্যগ্র মেদিনীও বিনা লড়াইয়ে ছাড়বে না গেরুয়া শিবির। এদিন দাঁতন রওনা হওয়ার আগে তিনি তৃণমূলের উদ্দেশ্যে তোপ লাগেন।

Related Articles

Back to top button
Close