fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

পাওনা টাকা নিয়ে বচসার জেরে দুই পরিবারের মধ্যে সংঘর্ষ, জখম ১২, গ্রেফতার ১

শ্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা: পাওনা টাকা নিয়ে বচসার জেরে দুই পরিবারের মধ্যে সংঘর্ষে জখম হল ১২ জন। বসিরহাটে মহাকুমার হাসনাবাদ থানা বরুণ সর্দার পাড়ার ঘটনা। ঘটনায় একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

জানা গিয়েছে, স্থানীয় মোজাফফর গাজীর কাছে ১০০০, টাকা, পাওনা টাকা পেতেন হবিবর মিস্ত্রি। রবিবার রাত আটটা নাগাদ সেই টাকা চাইতে গেলে প্রথমে বচসা গন্ডগোল মারধর হয়, তাতে দুজন-জখম হন। হাসপাতালে চিকিৎসা করে বাড়ি ফিরে স্থানীয় বিজেপি নেতা পিন্টু মোল্লাকে খবর দিলে দলবল নিয়ে এসে মোজাফফর গাজীর পরিবারের উপরে রবিবার ভোররাতে বাঁশ, লোহার রড, হাতুড়ি নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়ে। এমনকী মহিলারাদের মাথা ফাটিয়ে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। শিশুদের মারধর করা হয়। ঘটনায় দুপক্ষের মোট জখম হয়েছেন মোট ১২ জন। এদের মধ্যে মোজাফফর গাজীর স্ত্রী-শিশুসহ আটজন জখম হয়েছেন। আহতদের টাকি গ্রামীণ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ৫ জনের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

এই ঘটনার পাশাপাশি বাড়ি ভাঙচুর, এবং দুটো বাড়িতে পেট্রোল দিয়ে আগুন লাগিয়ে দেওয়ার অভিযোগও উঠেছে।

জানা গিয়েছে, বেশ কিছুদিন আগে এলাকায় মারধর গন্ডগোল পাকানোর অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছিলেন বিজেপি নেতা পিন্টু মোল্লা জেল খেটে বাড়ি ফিরেছেন। ওই গ্রামের যারা এই পিন্টু মোল্লার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছিল, যেমন মোজাফফর গাজী সহ বেশ কিছু গ্রামের মানুষ তাদেরকে বেছে বেছে, তাদের উপর চড়াও হয়ে বাড়িতে আগুন, বাড়ি ভাঙচুর, এবং মারধর করার অভিযোগ উঠছে পিন্টু মোল্লার বিরুদ্ধে। আক্রান্ত পরিবারগুলি সকলে তৃণমূল কংগ্রেস করে।

এদিকে এই অভিযোগ অস্বীকার করে বিজেপি নেতা পিন্টু মোল্লা বলেন, ওদের নিজেদের ঘর নিজেরাই আগুন লাগিয়ে দিয়ে আমাদের নামে দোষ দিচ্ছে। পুলিশ তদন্ত করে দেখুক সত্য ঘটনা বেরিয়ে আসবে। আমাদের অপরাধ আমরা বিজেপি পার্টি করি।

Related Articles

Back to top button
Close