fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

দিনহাটায় প্রত্যাহার কন্টেইনমেন্ট জোন, খুশির হাওয়া বনিকমহলে

করোনা ভাইরাস মধ্যেও দিনহাটা পুরসভা এলাকা থেকে তুলে দেওয়া হল কন্টেনমেন্ট জোন।বাড়ান হল দোকান খোলা রাখার সময় সীমা

নিজস্ব সংবাদদাতা দিনহাটাঃ করোনা ভাইরাস মধ্যেও দিনহাটা পুরসভা এলাকা থেকে তুলে দেওয়া হল কন্টেইনমেন্ট জোন।পাশাপাশি দোকান খোলা রাখার সময় সীমা বাড়ান হল।রবিবার থেকেও মহকুমা প্রশাসনের দেওয়া সরকারি এই নির্দেশিকা কার্যকর হবে বলে জানা গেছে। প্রসঙ্গত কোচবিহার জেলা প্রশাসনের তরফ থেকে গত ১৬ সেপ্টেম্বর থেকে দিনহাটা পুরসভার ১৬ টি ওয়ার্ড কে কন্টেনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছিল।সেই সময়ের তুলনায় শহরে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা তুলনায় কমে আসায় প্রশাসনের তরফ থেকে দিনহাটা পুরসভা এলাকা থেকে কন্টেইনমেন্ট জোন প্রত্যাহার করে নেওয়া হল। সকাল আটটা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত দিনহাটা শহরের সমস্ত ধরনের দোকানপাট খোলা থাকবে বলে জানা গেছে। প্রশাসনের এই নির্দেশিকায় খুশি ব্যবসায়ীরা।

দিনহাটা ব্যবসায়ি কল্যাণ সমিতির সম্পাদক উৎপলেন্দু রায় বলেন, লাগাতার লকডাউনের ফলে দিনহাটার ব্যবসায়ীরা চরম সমস্যার মধ্যে পড়েছেন। কাজেই প্রশাসন যে উদ্যোগ নিয়েছে তাকে অভিনন্দন জানাই। তবে ক্রেতা এবং বিক্রেতা সকলকেই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। দোকান খোলার সময় সীমা বাড়ানোর জন্য প্রশাসনের কাছেও তারা দাবি জানিয়েছিলেন।

দিনহাটা মহকুমা ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক রানা গোস্বামী বলেন,”মহকুমা প্রশাসনের তরফ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে দিনহাটা শহরে আজ রবিবার থেকে কন্টেইনমেন্ট জোন উঠে যাচ্ছে।ফলে এদিন থেকে বেলা আটটার থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত দোকানপাট খোলা থাকবে”।

উল্লেখ্য গত তিন সপ্তাহে শহরে ৩৭ জন করোনা আক্রান্তর সন্ধান মেলায় দিনহাটা  শহরকে কন্টেনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করে জেলা প্রশাসন।

এবিষয়ে দিনহাটা মহকুমা শাসক শেখ আনসার আহমেদ বলেন, “জেলাশাসক এর তরফে দিনহাটা শহর থেকে আপাতত কন্টেইনমেন্ট জোন তুলে দেওয়ার একটি নির্দেশিকা এসেছে। তবে কনটেইনমেন্ট জোন উঠে গেলেও মানুষকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে”।

Related Articles

Back to top button
Close