fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

ফের কেরল, কোয়ারেন্টাইনে থাকা এক মহিলাকে ধর্ষণের অভিযোগ স্বাস্থ্যকর্মীর বিরুদ্ধে

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: কোয়ারেন্টাইনে থাকা এক মহিলাকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠল খোদ স্বাস্থ্যকর্মীর বিরুদ্ধে। কেরলের তিরুঅনন্তপুরমের অভিযুক্ত ওই প্রাইমারি হেলথ সেন্টারের জুনিয়র হেলথ ইন্সপেক্টরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

জানা গিয়েছে যে, মালাপ্পুরামে একজনের বাড়িতে আয়ার কাজ করেন নিগৃহীতা। সম্প্রতি কুলাথুপুঝায় নিজের বাড়ি ফেরার পর করোনার নিয়ম মেনে কোয়ারেন্টাইনে ছিলেন তিনি। এরপর অ্যান্টিজেন পরীক্ষা করা হলে ওই মহিলার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। অভিযুক্ত স্বাস্থ্যকর্মী মহিলাকে বলেন বারাথানুড়ে তার বাড়ি থেকে রিপোর্টটি সংগ্রহ করতে।

ওই মহিলা জানিয়েছেন যে, গত ৩ সেপ্টেম্বর অভিযুক্তর বাড়িতে যান তিনি রিপোর্ট সংগ্রহ করতে। সেই সুযোগেই  তার উপর চড়াও হয় ওই স্বাস্থ্যকর্মী। রাতভর চলে তাঁর ওপর পাশবিক অত্যাচার।

[আরও পড়ুন- করোনা পরিস্থিতিতে চিকিৎসা ছেড়ে অটো চালাচ্ছেন এক চিকিৎসক]

এর আগে গত শনিবার হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথেই এক তরুণীকে ধর্ষণ করে এক অ্যাম্বুলেন্স চালক। সেই ঘটনাস্থলও ছিল বাম শাসিত কেরল। ঘটনায় ওই অ্যাম্বুলেন্স চালককে গ্রেফতার করে পুলিশ। আশঙ্কাজনক অবস্থায় ওই তরুণীকে ভর্তি করা হয় কোভিড হাসপাতালে।

এর আগেও করোনা আক্রান্ত রোগীকে যৌন হেনস্থার অভিযোগ উঠেছে।  নয়ডার একটি বেসরকারি হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি ছিলেন এক করোনা আক্রান্ত চিকিৎসক। ওই ওয়ার্ডেই ভর্তি ছিলেন এক তরুণী। অভিযোগ উঠেছিল সেখানেই ওই চিকিৎসক তরুণীকে যৌন হেনস্থা করেন। এর আগে  হাসপাতালের মধ্যে এক করোনা রোগীকে ধর্ষণের চেষ্টা করেছিল এক চিকিৎসক। উত্তরপ্রদেশের আলিগড়ের দীনদয়াল হাসপাতালে  এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পরেই অভিযুক্ত ওই সরকারি চিকিৎসককে গ্রেফতার করে পুলিশ।

তবে এদিন কেরলের স্বাস্থ্যকর্মীর বিরুদ্ধে কোয়ারেন্টাইনে থাকা মহিলাকে ধর্ষণের কথা কাশ্যে আসার পর, মহিলা কমিশনও পৃথক ভাবে ওই স্বাস্থ্য কর্মীর বিরুদ্ধে মামলা নথিভুক্ত করা হয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close