fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ফের খেজুরিতে ফের সমুদ্র খাঁড়ি থেকে উদ্ধার কুমির, এলাকায় আতঙ্ক

মিলন পণ্ডা, খেজুরি (পূর্ব মেদিনীপুর): ফের পূর্ব মেদিনীপুর জেলার খেজুরিতে সমুদ্র সংলগ্ন খাঁড়িতে থেকে উদ্ধার হল একটি কুমিরের বাচ্চা। বৃহস্পতিবার সকালে কুমিরের বাচ্চা উদ্ধার ঘিরে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। এদিন সকালে স্থানীয় এক মৎস্যজীবির জালে উঠে আসে একটি কুমিরের বাচ্চা। ঘটনা জানাজানি হতেই এলাকায় কাতারে কাতারে মানুষ ভিড় জমায়। ঘটনাটি জানতে পেরে হাজির হয় বন বিভাগের অধিকারীরা। বর্তমানে কুমিরটি বন দফতরের খেজুরি বিট অফিসের তত্ত্বাবধানে রয়েছে। কুমিরটি লম্বা প্রায় এক ফুট। গত সেপ্টেম্বর খেজুরি পশ্চিম পাচুরিয়া মৎস্যজীবির জালে উঠে এসেছিল আস্ত একটি কুমির বাচ্চা। সেটাও লম্বা ছিল প্রায় এক ফুট।

উল্লেখ্য, পূর্ব মেদিনীপুর জেলার খেজুরির এলাকার বাসিন্দারা মাছ ধরে জীবিকা নিবারন করেন। বন দফতর ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার সকালে মৎস্যজীবি পাঁচুড়িয়া সমুদ্র সংলগ্ন খাঁড়িতে মাছ ও কাঁকড়া ধরতে গিয়েছিলেন। সেই সময় তাঁর জালে উঠে আসে কুমিরটি। এরপর কুমিরটিকে উদ্ধার করে নিয়ে আসেন। জানতে পেরেই এলাকার মানুষ ভিড় জমায়। দিন দশেকের মধ্যে দুবার কুমির উদ্ধারের ঘটনায় এলাকার মানুষের মধ্যে ব্যাপক আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে। অবশেষে বন দফতরের কর্মীরা এসে উদ্ধার হওয়া কুমিরটিকে নিয়ে যান।

প্রসঙ্গত, পূর্ব মেদিনীপুর জেলার খেজুরির  মেহেদিনগরের একটি বিরাট অংশ জুড়ে ম্যানগ্রোভ অরণ্য এবং ছোট ছোট খাঁড়ি রয়েছে। সেখানে কাঁকড়া এবং মাছ ধরার জন্য স্থানীয় বাসিন্দারা ভিড় জমান। সেই খাঁড়িতেই থেকে পরপর দুটি কুমিরটি বাচ্চা পাওয়া গেল। বন দফতরের কর্তাদের প্রাথমিক ধারণা, সুন্দরবনের দিক থেকে কোনওভাবে সমুদ্রে চলে আসতে পারে কুমিরটি। এখানে ঘন ম্যানগ্রোভ অরণ্য আর খাঁড়ি রয়েছে। তা কুমিরের থাকার পক্ষে আদর্শ জায়গা হয়ে উঠেছে।কাছাকাছি অঞ্চলে মা কুমিরও রয়েছে। না হলে পরপর দুটি বাচ্চা কুমির থাকা সম্ভব নয়। এছাড়া এখানে আরও কুমিরের বাচ্চাও থাকতে পারে অনুমান করা হচ্ছে। আমরা সবদিক খতিয়ে দেখছি।

Related Articles

Back to top button
Close