fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

সন্দেশখালিতে নতুন করে বিপর্যয়, ভাঙল ২০০০ ফুটের নদীর বাঁধ

শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনা: ফের নতুন করে বিপর্যয়। ২০০০ ফুটের বিদ্যাধরি নদীর বাঁধ ভাঙার ফলে বসিরহাট মহকুমা সুন্দরবনের সন্দেশখালি, হিঙ্গলগঞ্জ, হেমনগর, নেজাট, মিনাখাঁর বিস্তীর্ণ এলাকা প্লাবিত হল। আজ বেলা বারোটা নাগাদ ঘটনাটি ঘটে।

 

সরবেড়িয়া, ধামাখালি এলাকায় নদীর জল এসে যাওয়ায় রাস্তায় জল থৈ থৈ করছে। রাস্তার উপর চলছে রান্না, খাওয়া-দাওয়ার কাজ। গতকাল রাতেই আমফান ঝড়ে এই মানুষগুলোর ভিটেমাটি কড়ে নিয়েছে, এই দুর্দিনে তাদের পাশে রয়েছে শুধু হতাশা। উত্তর ২৪ পরগনা সুন্দরবন লাগোয়া সব থেকে বেশি মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, তারা পথ চেয়ে বসে আছে কখন সরকারি আধিকারিকরা আসবে। এসে তাদের পাশে দাঁড়াবে।

 

 

সন্দেশখালির রাহার আটি অঞ্চল প্রধান শাহজাহান মোল্লা বলেন, সন্দেশখালি বিধানসভার ষোলটা জিপি আছে, এই ১৬ টাই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব বাঁধের কাজ করতে হবে। মানুষকে দিয়ে বাঁধের কাজ করা সম্ভব না। জেসিপি গাড়ি দিয়ে শালবল্লা পুতে বাঁধের কাজ করাতে হবে। তা না হলে বহু মানুষ মারা যাবে, এদের কোনো আশ্রয় নেই। সবকিছু ঝড়ে তছনছ করে দিয়ে গেছে, এর পর আর কোনো রাস্তা নেই। ২০০৯ সালে আয়লা দেখেছি, তারপর বুলবুল দেখেছি, কিন্তু এত বড় বিপর্যয় এই আমফান ঝড় দেখলাম। বহু মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। সরকার তাদের পাশে এসে দাঁড়াক, তা না হলে সমস্ত মানুষ বিপদের শেষ থাকবে না।

Related Articles

Back to top button
Close