fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

বেপরোয়া বাইক চালানোর প্রতিবাদ করায় ছুরিকাঘাতে জখম প্রতিবাদী, গ্রেফতার অভিযুক্ত

প্রদীপ চট্টোপাধ্যায়, বর্ধমান:  বেপরোয়া বাইক চালানোর প্রতিবাদ করায় বাইক চালকের ছুরিকাঘাতে জখম হলেন প্রতিবাদী। চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে পূর্ব বর্ধমানের জামালপুর থানা সংলগ্ন মাছ বাজার এলাকায়। ধারাল ছুরির আঘাতে গুরুতর জখম প্রতিবাদী যুবক তিননাথ মণ্ডল চিকিৎসাধীন রয়েছেন বর্ধমান মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে। আক্রান্তের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে জামালপুর থানার পুলিশ বাইক চালক অরুণ পরামাণ্যকে গ্রেফতার করেছে। তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেছে প্রতিবাদী যুবকের পরিবার সদস্যরা।

ছুরিকাঘাতে জখম যুবক তিননাথ মণ্ডলের বাড়ি জামালপুরের উত্তর মোহনপুর গ্রামে ।তার পরিবারের লোকজন জামালপুর বাস্ট্যান্ড লাগোয়া মাছের আড়তে মাছ ব্যবসা করেন । তিননাথের কাকা শ্রীবাস মণ্ডল শুক্রবার রাতে বাইক চালক অরুণ পরামান্যর বিরুদ্ধে জামালপুর থানার লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

শ্রীবাস পুলিশকে তিনি জানিয়েছেন ,শুক্রবার বিকাল ৫টা নাগাদ তিনি ও তাঁর ভাইপো তিননাথ মাছের আড়তে বসেছিলেন ।ওই সময়ে স্থানীয় যুবক অরুণ পরামাণ্য মদ্যপ অবস্থায় বেপরোয়া ভাবে বাইক চালিয়ে তাদের কাছে এসে দাঁড়ায় । শ্রীবাস বাবু বলেন,অরুণের বেপরোয়া বাইক চালানোর প্রতিবাদ করে তিননাথ। তাতে ক্ষিপ্ত হয়ে অরুণ পরামাণ্য তাদের মাছের আড়তের ঘরে ভাঙচুর চালানো  শুরু করেদেয়। আড়তের ক্যাশবাক্সে থাকা ২ হাজার টাকা অরুণ ছিনিয়ে নিতে গেলে তাঁরা দু’জনে  বাধাদেন । তখনই অরুণ আড়তের সামনে পড়ে থাকা বাঁশ নিয়ে তাঁকে মারতে শুরু করে ।

আরও পড়ুন: ঢোলাহাটে উদ্ধার তাজা বোমা, ঘটনায় চাঞ্চল্য

ভাইপো তিননাথ তাঁকে বাঁচাতে গেলে অরুণ নিজের কাছে থাকা ধারালো ছুরি দিয়ে তিননাথের শরীরের একাধীক আঘাত করে ।ছুরিকাঘাতে তিননাথ মারাত্মক জখম হয়।শ্রীবাস জানান ,অরুণের হামলার হাত থেকে বাঁচতে তারা চিৎকার চেঁচামেচি শুরু করেন। তা শুনে বাসস্ট্যান্ড এলাকার লোকজন  আড়তে হাজির হতে শুরু করলে অরুণ চম্পট দেয়। রক্তাত অবস্থায় তিননাথকে  উদ্ধার করে জামালপুর ব্লক স্বাস্থ কেন্দ্রে নিয়ে যান । সেখানে প্রাথমিক চিকিৎষার পর রাতে তিননাথকে বর্ধমান মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয় ।

পুলিশ জানিয়েছে ,আক্রান্তের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে সুনির্দিষ্ট ধারায়  মামলা রুজু করে অভিযুক্ত অরুণের খোঁজ শুরু করা হয়। গভীর রাতে হরেকৃষ্ণ কোঙার সেতু লাগোয়া বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। যে ছুরি দিয়ে আঘাত করে সে তিননাথকে জখম করেছে সেটি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। পুলিশ শনিবার ধৃতকে পেশ করে বর্ধমান আদালতে।

 

 

Related Articles

Back to top button
Close