fbpx
দেশহেডলাইন

বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে ‘ট্যুরিস্ট গ্যাং’ বলে কটাক্ষ ডেরেকের

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে ‘ট্যুরিস্ট গ্যাং’ বলে কটাক্ষ করল তৃণমূল। মঙ্গলবার সকালে টুইটারে প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে নিশানা করেন তৃণমূল সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন। তিনি লেখেন, ‘মোদি-শাহর ট্যুরিস্ট গ্যাং বাংলায় ঘুরে বেড়াচ্ছে, ওদের উচিত আগে বাংলার পাওনা মিটিয়ে দেওয়া।’ নথি তুলে ধরে রাজ্যে বকেয়া পাওনা মেটানোর দাবিও জানান তিনি। রাজ্যের বকেয়া পাওনা নিয়ে বারবার সরব হয়েছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এমনকী, প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বিভিন্ন বৈঠকেও এই দাবি জানিয়েছেন তিনি। কোন প্রকল্পের দরুন কত টাকা পাওনা বকেয়া রয়েছে, তা এদিন টুইটারে তুলে ধরেন ডেরেক।

টুইটারে ডেরেকের দাবি, সর্বশিক্ষা অভিযানে ১৪ হাজার ৫২০ কোটি, সমগ্র শিক্ষা মিশনে ৯৭০ কোটি, মিড ডে মিলে ২৩৩ কোটি, স্বচ্ছ ভারত মিশনে ২৭৫ কোটি, মনরেগায় ৬৩১ কোটি, আমরুতে ২৫৪ কোটি, ছিটমহল বিনিময় বাবদ ১৮৮ কোটি, বিআরজিএফ ২ হাজার ৩৩০ কোটি, বেসিক গ্রান্ট ৪৩৮ কোটি-সহ একাধিক খাতে মোট ৮৫ হাজার ৭২০ কোটি টাকা পাওনা বকেয়া রয়েছে বাংলার। রাজ্যের বকেয়া পাওনা মিটিয়ে দেওয়ার জন্য প্রায় প্রতিদিনই কেন্দ্রকে চাপ দিচ্ছে শাসক দল তৃণমূল। সম্প্রতি করোনা পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীদের বৈঠকেও ফের রাজ্যের পাওনা নিয়ে সরব হন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কেন্দ্রীয় সাহায্য নিয়ে তোপ দাগেন মমতা। তাঁর অভিযোগ, জিএসটির বকেয়া টাকা দিচ্ছে না কেন্দ্র।

আরও পড়ুন: হিন্দুদের স্বার্থেই রাষ্ট্রবাদী সরকার চাই, বলছে ভিএইচপি

তিনি এদিন ভিডিও কনফারেন্সে বলেন, ‘কেন্দ্রের কাছ থেকে পর্যাপ্ত সাহায্য মেলেনি। জিএসটি বাবদ রাজ্য কেন্দ্রের কাছে সাড়ে আট হাজার কোটি টাকা পায়। সেই টাকা কেন্দ্র দিচ্ছে না। এদিকে বিভিন্ন খাতে রাজ্যের খরচ বেড়ে গিয়েছে। ইতিমধ্যেই কোভিড পরিস্থিতি মোকাবিলায় রাজ্য চার হাজার কোটি টাকা খরচ করে ফেলেছে। সেখানে কেন্দ্রীয় সরকার রাজ্যকে দিয়েছে মাত্র ১৯৩ কোটি টাকা।’কিছুদিন আগেই বকেয়া পাওনাগণ্ডা মেটানোর জন্য নরেন্দ্র মোদিকে চিঠি দিয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

 

 

 

Related Articles

Back to top button
Close