fbpx
কলকাতাহেডলাইন

করোনা উপসর্গ থাকা সত্ত্বেও রোগীকে ফেরাল দুটি হাসপাতাল, অ্যাম্বুল্যান্সেই মৃত্যু ব্যক্তির

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: অসুস্থ রোগীকে কোনওভাবেই হাসপাতাল থেকে রেফার করা যাবে না, কিছুদিন আগেই এই মর্মে নির্দেশিকা জারি করেছিল স্বাস্থ্য দফতর। এটাও বলা হয়েছিল, একান্তই বেডের অভাবে রেফার করতে হলে যে হাসপাতালে রোগী যাবেন, সেখান থেকে অক্সিজেন-সহ অ্যাম্বুল্যান্স দিয়ে অন্য হাসপাতালে পৌঁছে দিতে হবে। কিন্তু সরকারি নির্দেশনামাও যে হাসপাতালগুলি মানছে না, তা ফের প্রমাণ মিলল উত্তর কলকাতার শোভাবাজারে ১৯ নম্বর ওয়ার্ডে।

জানা গিয়েছে, শোভাবাজার এলাকার ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা ওই ব্যক্তি গত তিন দিন ধরে অসুস্থ ছিলেন। পরিবারের সদস্যরা বলছেন, গা-হাত-পায়ে ব্যথা ছিল। ঠান্ডা লেগে জ্বরও এসে তা সেরেও গিয়েছিল। শনিবার সকাল থেকে আচমকাই শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। তারপরই তাকে একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তাঁর একাধিক শারীরিক পরীক্ষা করেও ভর্তি নেওয়া হয়নি। তারপর ওই ব্যক্তিতে বেলেঘাটা আইডি-তে নিয়ে যাওয়া হলে সেখান থেকে আবার এমআর বাঙ্গুর হাসপাতালে রেফার করা হয়। কিন্তু সেখানে নিয়ে যাওয়ার আগেই অ্যাম্বুল্যান্সে অক্সিজেনের অভাবে ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয়।

আরও পড়ুন: ক্লাবগুলোকে ফূর্তির টাকা দেওয়া যায়, আর পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরানো যায় না: রাহুল সিনহা

এরপরে এদিকে ওই ব্যক্তির মৃতদেহ বাড়িতে ফিরিয়ে আনেন আত্মীয়-স্বজন। স্থানীয় বাসিন্দাদের দাবি, ওই ব্যক্তির করোনা উপসর্গ দেখা দিয়েছিল। কিন্তু কোনওরকম শারীরিক পরীক্ষা ছাড়াই দেহ সৎকার করা হচ্ছে। হাসপাতালগুলির রেফারের জন্যই এই ঘটনা ঘটেছে। অবিলম্বে ওই ব্যক্তির পরিবারকে কোয়ারেন্টাইন করার দাবি জানিয়েছেন তাঁরা সকলে। একই সঙ্গে কেন ওই ব্যক্তিকে হাসপাতালগুলি ফিরিয়ে দিল, তার তদন্তও সকলে দাবি করেছেন।

Related Articles

Back to top button
Close