fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

করোনা স্বাস্থ্যবিধি মেনে ফুল, ফল, বেলপাতা ছাড়াই দক্ষিণেশ্বর মন্দিরে পুজো দিলেন ভক্তরা

অলোক কুমার ঘোষ, ব্যারাকপুর: করোনা স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতি বছরে করোনা আবহে কড়া নিরাপত্তার মধ্যে মা ভবতারিণীর পুজোর আয়োজন করা হয়েছে ঐতিহাসিক দক্ষিণেশ্বর কালী মন্দিরে । শনিবার কালীপুজো উপলক্ষে দক্ষিণেশ্বর কালী মন্দির কর্তীপক্ষ কালী মন্দিরের মূল দরজা সকাল ৭টা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত খোলা রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভক্তদের জন্য। তবে করোনা সুরক্ষার সব রকম প্রশাসনিক নির্দেশ মানা হচ্ছে মন্দির চত্ত্বরে । মন্দিরে প্রবেশ পথে প্রত্যেক ভক্তদের থার্মাল স্ক্রিনিং করে স্যানিটাইজার টানেলের মধ্যে দিয়ে মন্দির প্রাঙ্গণে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

পুজো দিতে আসা ভক্তদের ফুল, ফল, সিঁদুর, বেলপাতা ও খাবার নিয়ে মন্দিরে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না। পুজো দেওয়ার জন্য মন্দির কর্তৃপক্ষ মন্দির প্রাঙ্গণে দূরত্ব বিধি এঁকে দিয়েছে, সেই অনুসারে ভক্তদের লাইনে দাঁড়াতে হচ্ছে পুজো দিত। পুজো দেওয়ার পর দ্রুত ভক্তদের মন্দির প্রাঙ্গণ থেকে বাইরে চলে যেতে অনুরোধ করা হচ্ছে মাইকিংয়ের মাধ্যমে। মন্দিরের ভেতরে যে ভক্তরা পুজো দিতে আসছেন, তাদের মধ্যে পুরুষ ও মহিলাদের আলাদা লাইন করে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে নির্দিষ্ট দূরত্বে লাইনে দাঁড়িয়ে ধীরে ধীরে এগিয়ে যেতে অনুরোধ করা হচ্ছে মাইকিংয়ের মাধ্যমে। করোনা স্বাস্থ্য বিধি যথাযথ মেনে দক্ষিণেশ্বর কালী মন্দিরে চলতি বছরে ভক্তদের পুজো দেওয়ার ব্যবস্থা করায় খুশি পুজো দিতে আসা ভক্তরা।

প্রত্যেকেই জানিয়েছেন, তারা মায়ের কাছে দ্রুত করোনা মুক্ত সমাজ গড়ে উঠুক, সেই প্রার্থনাই করেছেন। এদিকে মা ভবতারিণী দেবীর সামনে যারা পুজোর কাজ করছেন, পিপিই কীট পরে তারা পুজোর কাজ করছেন। সন্ধ্যার পর ভক্তরা যাতে নিরাশ না হন সেই জন্য চলতি বছরে অনলাইনে মায়ের পুজো দেখানোর ব্যবস্থা করেছে মন্দির কমিটি, অনলাইনে ভক্তরা চলতি বছরে অঞ্জলিও দিতে পারবেন বলে মন্দির কমিটির মুখপত্র কুশল চৌধুরী জানিয়েছেন। কালীপুজো উপলক্ষে মন্দির চত্ত্বরে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ব্যারাকপুর পুলিশ কমিশনারেটের পুলিশ কর্মীরা যেমন আছেন, সেই সঙ্গে মন্দির কমিটির অতিরিক্ত নিরাপত্তা রক্ষী ও কালী পুজো উপলক্ষে মন্দির চত্বরে উপস্থিত রাখা হয়েছে। মন্দিরে লাগানো হয়েছে অতিরিক্ত সিসিটিভি ক্যামেরা। এছাড়া ও বেশি রাতে ভক্তদের মায়ের পুজো দেখানোর জন্য মন্দির চত্ত্বরে বেশ কয়েকটি জয়েন্ট স্ক্রিন বসানো হয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close