fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

‌ঢোলাহাটে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মৃত মা ও ছেলে, শোকের ছায়া এলাকায়

অমিতাভ মণ্ডল, ঢোলাহাট: বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মৃত্যু হল মা ও কলেজ পড়ুয়া ছেলের। মা দীপ্তি পুরকাইত (৩৮) ও ছেলে শুভ পুরকাইত (১৯)। শনিবার সকালে ঘটনাটি ঘটে ঢোলাহাটের রামদেবপুরে। এদিন সকালে বাড়ির বারান্দা ধোয়ামোছা করছিলেন মা দীপ্তি। ঘর মোছার সময় বালতি উল্টে যায়। বারান্দায় জল ভর্তি হয়ে যায়। সেই জল শুকানোর জন্য স্ট্যান্ড ফ্যান চালাতে আসেন দীপ্তি। সঙ্গে সঙ্গে তড়িদাহত হয়ে যান তিনি। বাড়ির সকলে তখন ঘুমোচ্ছিলেন। কলেজ পড়ুয়া ছেলে মায়ের চিৎকার শুনে বেরিয়ে আসেন। মাকে বাঁচাতে এসে তড়িদাহত হয়ে যান ছেলে শুভও। প্রতিবেশীরা তড়িঘড়ি উদ্ধার করে নিয়ে যায় ডায়মন্ড হারবার হাসপাতালে। চিকিৎসকরা মা-‌ছেলেকে মৃত ঘোষণা করেন। এদিন বিকেলে ডায়মন্ড হারবার হাসপাতাল মর্গে মা-‌ছেলের দেহের ময়নাতদন্ত হয়। আকস্মিক দুর্ঘটনায় পরিবারের নেমেছে শোকের ছায়া।

রামদেবপুরের বাসিন্দা মধ্য পঞ্চাশের সমীর পুরকাইত। পরিবারের আছেন স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে। সমীর পেশায় কৃষক। স্থানীয় ছোলাহাট হাইস্কুলের পরিচালন সমিতির সদস্য। প্রতিদিনের মতো শনিবার সকালে বাড়ির বারান্দা মুছছিলেন স্ত্রী দীপ্তি। সেইসময় ঘটে মর্মান্তিক দুর্ঘটনা। দুর্ঘটনার পর প্রতিবেশীরাও ভিড় করেছেন বাড়িতে। সমীরও কান্নায় ভেঙে পড়েছেন। মেয়ে রিমা নবম শ্রেণির ছাত্রী। মৃত শুভ গড়িয়াহাটের একটি বেসরকারি ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজে পড়ত। হস্টেলে থেকেই পড়াশোনা করতেন। লকডাউনের জন্য বাড়িতে ছিলেন শুভ।‌‌

Related Articles

Back to top button
Close