fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ক্যান্সার আক্রান্ত এক রোগীর হাতে ওষুধ তুলে দিল দিনহাটা থানার আইসি সঞ্জয় দত্ত`

নিজস্ব সংবাদদাতা দিনহাটা : মানুষ কে নানা ভাবে রক্ষা করে চলছে পুলিশ। কখনো নিরাপত্তা দিয়ে এবার কখনো ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীর হাতে ওষুধ তুলে দিয়ে রক্ষা করে চলছে। দিনহাটার গ্রামের ক্যান্সার আক্রান্ত এক রোগীর হাতে ওষধ তুলে দিয়ে পুলিশ যে কতটা মানবিক তা প্রমান করে দিল। দিনহাটা থানার আইসি সঞ্জয় দত্ত উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ থেকে সেই ওষধ জোগাড় করে ক্যান্সার আক্রান্ত এক রোগীর হাতে তুলে দেওয়ার ব্যবস্থা করে । লকডাউনের ফলে ক্যান্সার আক্রান্ত রোগী এবং তার পরিবারের লোকজন শিলিগুড়ি থেকে ওষুধ আনতে না পারায় পুলিশের শরণাপন্ন হন। দিনহাটা থানার আইসি শিলিগুড়ি থেকে সেই ওষধ ব্যবস্থা করে রবিবার গোসানিমারি বাসিন্দা দেবব্রত বর্মনের হাতে তুলে দেন।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে ২০১৬ সাল থেকে ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত দেবব্রত বর্মন। প্রত্যেক তিন মাস অন্তর অন্তর উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার রক্ত পরীক্ষা হয়। কিন্তু লকডাউনের কারণে তার চিকিৎসা ঠিকমতো হচ্ছে না এমনকি তার ওষুধও ঠিকমত পাচ্ছেন না। শিলিগুড়ির উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ থেকে ওই ওষধ সংগ্রহ করে নিয়ে আসতে হয়। কিন্তু লকডাউনের ফলে দেবব্রত বর্মনের পরিবার সেই ওষুধ সংগ্রহ করতে না পারায় সমস্যায় পড়েন। তারা দিনহাটা থানার আইসি সঞ্জয় দত্তের কাছে গিয়ে বিস্তারিত জানান। এরপর আইসি নিজে উদ্যোগী হয়ে দিনহাটার চিকিৎসক বিদ্যুৎ কমল সাহার মাধ্যমে যোগাযোগ করেন উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজের চিকিৎসকের সাথে। সেখান থেকে দুই মাসের ওষধ সংগ্রহ করে আক্রান্ত রোগীর হাতে তুলে দেন দিনহাটা থানার আইসি।

আরও পড়ুন: পরিবহন সচল না করে অফিস খোলায় সরকারকে ‘উন্মাদ’ বলে মন্তব্য আব্দুল মান্নানের

আইসি সঞ্জয় দত্ত জানান ক্যান্সার আক্রান্ত দেবব্রত বর্মন নামে ওই রোগী লকডাউনের ফলে ওষুধ আনতে না পারায় তার কাছে এলে তিনি দিনহাটার এক চিকিৎসকের মাধ্যমে সেখানে যোগাযোগ করেন। এবং সেখান থেকে দুই মাসের ওষধ সংগ্রহ করে তার হাতে তুলে দেন। এছাড়াও দিনহাটার এক চিকিৎসক অজয় মণ্ডল ওই রোগীর জন্য আরো ২০ দিনের ওষধ ব্যবস্থা করে দেন বলেও আইসি জানান। ওষুধ পেয়ে খুশি রোগীর পরিবারের লোকেরা। হ্যাঁ পুলিশের এই ভূমিকা এবং মানবিক মুখ কে সাধুবাদ জানান সমাজের বিভিন্ন স্তরের মানুষ।

Related Articles

Back to top button
Close