fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

সংকটময় পরিস্থিতিতে রেশন দুর্নীতি রুখতে পথে পুরুলিয়ার জেলাশাসক

দুঃখ ভঞ্জন পরামানিক, বরাবাজার:  দেশ তথা রাজ্যের সংকটময় পরিস্থিতিতেও বারবার খবরের শিরোনামে উঠে আসছে রেশন দুর্নীতি। রেশন দুর্নীতি রুখতেই আজ মানবাজার মহকুমার বেশ কয়েকটি এলাকার রেশন দোকান পরিদর্শন করলেন পুরুলিয়ার জেলাশাসক রাহুল মজুমদার। আজ ১লা মে তথা মে দিবস। জেলা প্রশাসনের পূর্ব ঘোষণা মত আজ থেকে শুরু হয়েছে ডিজিটাল রেশন কার্ডে রেশন সামগ্রী বিতরণের কাজ। এই সংকট কালীন পরিস্থিতিতে জেলাবাসীর খাদ্যের সংকট মেটাতে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার যে বিশেষ প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন তা আজ থেকেই শুরু হয়েছে বিতরণের কাজ।AAY,SPHH,PHH,RKSY-1,RKSY-2 এই পাঁচ ধরনের রেশন কার্ডে বরাদ্দকৃত রেশন সামগ্রী পাবেন সাধারণ মানুষেরা।

তবে জেলাবাসী এই রেশন সামগ্রী পাবেন শুধুমাত্র ১লা মে থেকে আগামী তিন মাস তথা জুলাই পর্যন্ত। রেশন বিতরণের পরিস্থিতি সরজমিনে খতিয়ে দেখতে আজ বরাবাজার ব্লকের অন্তর্গত বরাবাজার, টকরিয়া, মানপুর ইত্যাদি গ্রামের রেশন দোকান গুলি পরিদর্শন করেন। তার পাশাপাশি উপভোক্তাদের সঙ্গে কথাও বলেন।কোন কার্ডে মাথাপিছু তাঁদের বরাদ্দকৃত খাদ্য সামগ্রীর পরিমাণ কত তাও তিনি নিজেই বাতলে দেন। তাঁর পরিদর্শনে যোগ্যসঙ্গ দেন মানবাজার মহকুমার মহকুমা শাসক, বরাবাজার ব্লকের সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিক, বরাবাজার থানার আইসি প্রমূখ।

আরও পড়ুন: বীরভূমে তিনজন করোনা আক্রান্তের সন্ধান, তড়িঘড়ি প্রশাসনিক বৈঠক

অতিরিক্ত খাদ্য সামগ্রী উপভোক্তারা ১৫ দিন পর পর বা এক মাস পর পরেও তুলতে পারেন নিজেদের সুবিধামতো। অতিরিক্ত খাদ্য সামগ্রী পেয়ে জঙ্গলমহল তথা মানবাজার মহকুমা বাসীরা খুবই খুশী।বর্তমান সংকটকালীন পরিস্থিতিতে এই খাদ্য সামগ্রী তাদের কষ্ট অনেকটাই লাঘব করবে বলে প্রশাসনের মতামত। এরপর জেলাশাসক মানবাজার মহকুমার অন্তর্গত বান্দোয়ান, মানবাজার-১ মানবাজার-২ ইত্যাদি ব্লক গুলির পরিস্থিতি সরজমিনে খতিয়ে দেখতে যান।

Related Articles

Back to top button
Close