fbpx
কলকাতাহেডলাইন

রাজ্যপাল পদের গরিমার মর্ম বোঝেন না: ফিরহাদ

অভিষেক গঙ্গোপাধ্যায়, কলকাতা: ‘রাজ্যপাল পদের গড়িমার মর্ম বোঝেন না।’ তোপ দাগলেন পুরমন্ত্রী তথা পুর প্রশাসক মণ্ডলীর চেয়ারম্যান ফিরহাদ হাকিম। শনিবার পুরসভায় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে ফিরহাদ একথা বলেন।
ক্রমেই তুঙ্গে উঠছে রাজ্য ও রাজ্যপালের সংঘাত। ‘রাজভবনের ক্ষমতা খর্ব করতে চাইছেন মমতা বন্দোপাধ্যায়।’ এই মর্মে শনিবার টুইট করেন রাজ্যপাল জাগদীপ ধনকর। এর পাল্টা তির্যক জবাব দিলেন এদিন পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। রাজ্যপালকে বিজেপির ক্যাডার বলে কটাক্ষ করেন তিনি।

শনিবার সকালেই রাজ্যপাল কড়া টুইট করে লেখেন, “পশ্চিমবঙ্গে ক্ষমতার অলিন্দ স্বার্থান্বেষীতে ভরে গিয়েছে। রাজভবন-সহ রাজ্যের বিভিন্ন প্রশাসনিক প্রতিষ্ঠানগুলির ক্ষমতা খর্ব করার চেষ্টা চলছে”। এর সাথেই রাজ্যের মানবাধিকার বিপন্ন বলেও এদিন মন্তব্য করেন রাজ্যপাল। শুধু তাই নয়, রাজ্যের পুলিশ কর্মীরা এই মানবাধিকার হরণ করছেন বলেও বিস্ফোরক অভিযোগ করেন তিনি। এই অভিযোগের প্রেক্ষিতে টুইটে তিনি উল্লেখ করেছেন, “রাজ্যের বিরোধীদের কলকাতা ও রাজ্য পুলিশ হেনস্থা ও আটক করছে। এগুলো পশ্চিমবঙ্গ মানবাধিকার রক্ষা কমিশনের দেখার হলেও তারা এড়িয়ে যাচ্ছেন”।

এর পরিপ্রেক্ষিতে চরম অসন্তোষ প্রকাশ করেন ফিরহাদ হাকিম। তিনি বলেন, “রাজ্যপাল ভুলভাল বকেন। একটা সাধারণ মানুষও জানেন এখন রাজ্যপাল বিজেপির ক্যাডার। যখন উনি রাজ্যপালের মত কথা বলবেন তখন উনার কথার জবাব দেবো। বিজেপির ক্যাডার হয়ে কথা বললে সেই কথার জবাব দেওয়ার প্রয়োজন মনে করিনা”।

কড়া ভাষায় রাজ্যপালকে কটাক্ষ করে ফিরহাদ বলেন, “উনি নিজে কতটা অযোগ্য রাজ্যপাল সেটা নিজেই প্রমাণ করছেন। রাজ্যপালের কাজ মুখ্যমন্ত্রীকে পরামর্শ দেওয়া। অথচ তিনি সেটা না করে দোষারোপ করছেন রাজ্য সরকারকে। রাজ্যের প্রধান হিসেবে তাহলে সেই দোষারোপ তিনি নিজেকেই করছেন”।

পুরমন্ত্রীর কথায়, “রাজ্যপাল হিসেবে সেই চেয়ারটা নিরপেক্ষ থাকা উচিত। কিন্তু যখন কেউ দলের হয়ে কাজ করে তখন তার চাকরি বাঁচানোর তাগিদ থাকে। তাই চাকরি বাঁচাতে গেলে ওপরওয়ালাকে খুশি করতে যা বলতে হয় উনি তাই বলছেন”।

Related Articles

Back to top button
Close