fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

সরকারি সাহায্যের দাবিতে ফের সরব হলেন ক্ষৌরকাররা

ময়নাগুড়ি: লকডানের ফলে চরম সমস্যায় পড়েছে ক্ষৌরকাররা। টানা লকডাউনে বহুদিন যাবত বন্ধ রয়েছে দোকানপাট। অন্য সব দোকান খুললেও লকডাউনের আওতায় পরে এখনো তালা ঝুলছে সেলুনে। ফলে দীর্ঘদিন ধরে কাজ কর্ম হারিয়ে পরিবার নিয়ে চরম সংকটের মধ্যে দিন কাটাচ্ছেন উত্তরবঙ্গের ক্ষৌরকাররা।

রবিবার প্রশাসনের কাছে কয়েক দফা দাবি নিয়ে একপ্রস্থ আলোচনা সারলেন ময়নাগুড়ি ব্লকের চূড়াভান্ডার অঞ্চল কমিটির ক্ষৌরকাররা। এদিন চূড়াভান্ডার অঞ্চলের সমস্ত ক্ষৌরকারদের নিয়ে একটি আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। এদিনের সভায় উপস্থিত ছিলেন উত্তরবঙ্গ ক্ষৌরকার শীল সমন্বয় সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি হরেকৃষ্ণ শর্মা, কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা গৌরাঙ্গ শর্মা, অঞ্চল কমিটির সভাপতি ধীরাজ শর্মা সহ প্রমুখ সদস্যেরা।

 

উল্লেখ্য করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে লকডানের শুরু থেকে কার্যত রুজি রুটির টান পড়েছে ক্ষৌরকারদের। ফলে সরকারি নিষেধাজ্ঞা সচেতনতার কথা ভেবে কোনোরকম ভাবে সংসার চালাতে বাধ্য হচ্ছেন তারা। এই পরিস্থিতির সন্মুখীন হয়ে নিরুপায় হয়ে ইতিমধ্যেই তারা সরকারি সহযোগিতার দাবীতে ব্লক স্তর থেকে শুরু করে জেলা স্তরেও তারা তাদের দাবি জানান কিন্তু তাতেও তাদের হাল না ফেরায় জেলাশাসকের মাধ্যমে মুখ্যমন্ত্রীকে তাদের সহযোগিতা জন্য চিঠি দেন।

ইতিমধ্যেই লকডাউন বেড়ে গিয়েছে কিন্তু এখনো অবধি সরকারি ভাবে কোনো সহযোগিতা না মেলায় এদিন ফের সরব হলেন ক্ষৌরকাররা। একদিকে লকডাউনে ক্ষৌরকর্ম বন্ধ অপরদিকে অনেকেই গ্রামেগঞ্জে কাজের জন্য হুমকি দেওয়ায় সংক্রমণের ব্যাপারে আতঙ্কিত তারা। এদিন তারা সরকারি সহযোগিতা ও নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে তাদের বিমার আওতায় আনার দাবিতে জেলাশাসকের কাছে লিখিত আকারে ফের দাবীদাওয়া পেশ করা হবে বলে জানান। আগামী দিনে সেই দাবি পূরণ না হলে আন্দোলনে নামবেন বলে জানিয়েছেন উত্তরবঙ্গ ক্ষৌরকার শীল সমন্বয় সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সভাপতি হরেকৃষ্ণ শর্মা।

Related Articles

Back to top button
Close