fbpx
আন্তর্জাতিকহেডলাইন

সিরিয়ায় সামরিক অভিযানের হুমকি এরদোগানের

আংকারা, (সংবাদ সংস্থা): কার দখলে থাকবে সিরিয়া তা নিয়ে সিরিয় সরকার, তুরস্ক ও রাশিয়ার মধ্যে শুরু হয়েছে কূটনৈতিক টানাপোড়ন।  এরই মাঝে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়েপ এরদোগান হুমকি দিয়েছেন, সিরিয়া সীমান্তে সশস্ত্র কুর্দিদের না  সরালে সেখানে সামরিক অভিযান করা হবে।
পার্লামেন্টের এক ভাষণে এরদোগান বলেছেন, ‘আমাদের প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছিলো সব সন্ত্রাসবাদীদের সরিয়ে দেয়া হবে। তা না করা হলে যেকোনো মুহূর্তে হস্তক্ষেপ করার ন্যায্য অধিকার আমাদেরও আছে। আমরা তার প্রয়োজনও অনুভব করছি।’
উল্লেখ্য, গত কয়েক দিন আগে তুরস্কে ঢুকে পড়ে দুই সশস্ত্র কুর্দি। সীমান্ত প্রদেশে পুলিশের তাড়া খেয়ে একজন আত্মঘাতী বোমা হামলা চালায়। আরেকজনকে পুলিশ গুলি করে হত্যা করে। এছাড়া গত সোমবার সিরিয়ার ইদলিব প্রদেশে ন্যাশনাল আর্মির প্রশিক্ষণ শিবিরে বিমান হামলা চালিয়েছে রাশিয়া। এই বিমান হামলায় প্রাণ হারান ৩৫ জন। বর্তমানে যে প্রদেশটি দখল করে রেখেছে তুরস্ক সমর্থিত বিদ্রোহীদের মধ্যে ১১টি গোষ্ঠী। এই দুই ঘটনার পরেই এমন হুমকি দিলেন এরদোগান।
সূত্রের খবর, সিরিয়ার সেনারা এখন ইদলিব প্রদেশটি নিজেদের দখল করতে চাইছে। তাদের সাহায্যে এগিয়ে এসেছে রাশিয়া। এ নিয়ে উত্তেজনা বেড়েই চলেছে। এই পরিস্থিতিতে এরদোগানের হুমকি থেকে পরিষ্কার বোঝা যাচ্ছে যে, উত্তেজনা আরো বাড়তে পারে। হুমকি অনুযায়ী এরদোগান যদি সিরিয়ায় সামরিক অভিযান করেন তা হলে পরিস্থিতি জটিল হবে। বড় ধরনের সংঘাতের সম্ভাবনাও বাড়বে। কেননা, এর আগেও ২০১৬ সাল থেকে তুরস্ক তিনবার উত্তর পশ্চিম সিরিয়ায় কুর্দিদের সরাতে অভিযান চালিয়েছে।

Related Articles

Back to top button
Close