fbpx
গুরুত্বপূর্ণপশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

গঙ্গাসাগরে কপিল মুনির আশ্রম চত্ত্বরে আগুন, দমকল দেরিতে আসায় ক্ষতি ১০-১৫ লক্ষ টাকার

বাবলু প্রামানিক,দক্ষিণ ২৪ পরগনা: গঙ্গাসাগরে কপিল মুনির আশ্রম চত্ত্বরে ভয়াবহ অগ্নিকান্ড। বারংবার ফোন করার পরেও দেরিতে আসে দমকল বাহিনী। দক্ষিণ ২৪ পরগনার গঙ্গাসাগরে এই বিধ্বংসী অগ্নিকান্ডে ভস্মীভূত হয়ে যায় প্রায় ১০-১২টি দোকান। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় একটি দোকানে প্রথমে আগুন লাগে। তার পরে সেই আগুন ছড়িয়ে পড়ে পার্শ্ববর্তী দোকানগুলিতে।

[আরও  পড়ুন- বাংলায় ৮ হাজার পুরোহিত কি তৃণমূলের ক্যাডার! প্রশ্ন ভিএইচপির]

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, একটি দোকানে ভীমরুলের বাসা আগুন দিয়ে পোড়াতে গিয়ে দুর্ঘটনাবশত এই অগ্নিকাণ্ড হয়। দীর্ঘদিন ধরে দোকান বন্ধ থাকার কারণে একটি দোকানে ভীমরুলের বাসা হয়েছিল। ওই দোকানের মালিক রাতের অন্ধকারে তা পুড়িয়ে ফেলার পরিকল্পনা করেন। মঙ্গলবার  রাতে আগুনে পোড়াতে চেষ্টা করেন ভীমরুলের বাসা।

কিন্তু অসাবধানতাবশত ঘরের চালে লেগে যায় আগুন এবং দ্রুত আগুন ছড়িয়ে পড়ে। সব মিলিয়ে প্রায় ১০ থেকে ১২টি দোকান সম্পূর্ণ পুড়ে ছাই হয়ে যায়। এরমধ্যেও বারবার দমকলে খবর দেওয়া হলেও অনেক দেরিতে এসে পৌঁছায় দমকলবাহিনী। যখন দমকলবাহিনী আসে, তখন সব পুড়ে ছাই হয়ে যায়। সব মিলিয়ে প্রায় ১০ থেকে ১৫ লক্ষ টাকার ক্ষতি হয়েছে। ব্যবসায়ী মহল থেকে সরকারের কাছে কিছু ক্ষতিপূরণ দেওয়া নিয়ে আর্জি জানানো হয়েছে।

 

Related Articles

Back to top button
Close