fbpx
কলকাতাহেডলাইন

একইসঙ্গে সরকার ও সিন্ডিকেট চালাচ্ছেন! মুখ্যমন্ত্রীকে কটাক্ষ রাজ্যপাল

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: রাজভবনে বসেই অপমান করে চলেছেন মুখ্যমন্ত্রীকে। ধার ধারছেন না সাংবিধানিক রীতিনীতির। একের পর এক বিতর্কিত পদক্ষেপ নিয়ে চলেছেন। একইসঙ্গে সরকার ও সিন্ডিকেট চালাচ্ছেন! মুখ্যমন্ত্রীকে রবীন্দ্রনাথের থেকে শিক্ষা নিতে বললেন ‘বিস্ফোরক রাজ্যপাল। মুখ্যমন্ত্রীর ১৩ পাতার চিঠির উত্তরে ৪ পাতার চিঠি রাজ্যপালের। চিঠির ছত্রে ছত্রে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিশানা করেছেন রাজ্যপাল।

ধনকরের অভিযোগ মুখ্যমন্ত্রী ক্ষমতার অপব্যবহার করছেন।২৩ ও ২৪ এপ্রিল রাজ্যপাল দুটি চিঠি পাঠিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রীর কাছে। শনিবার ১৩ পাতার চিঠি পাছিয়ে তারই জবাব দেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখানে তিনি লেখেন, রাজ্যপালের সাংবিধানিক সীমাবদ্ধতার কথা। সংকটের সময়ে রাজ্য সরকারের সমালোচনা না করে সহযোগিতার হাত বাড়ানো উচিত বলেও লিখেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী।এদিন মুখ্যমন্ত্রী ১৩ পাতার চিঠির জবাব দিয়েছেন রাজ্যপাল। সেখান করোনা মোকাবিলা থেকে রেশন সমস্যার কথা তুলে ধরেছেন। মুখ্যমন্ত্রীর চিঠির লাইন ধরে ধরে আক্রমণ করেছেন। মুখ্যমন্ত্রীকে ফের আলোচনায় বসার জন্য আহ্বান করেছেন রাজ্যপাল। চিঠিতে রাজ্যপালের অভিযোগ মুখ্যমন্ত্রী ক্ষমতার অপব্যবহার করছেন।

আরও পড়ুন: লোকসান করে গ্রিনজোনে বাস নামাতে নারাজ বাসমালিকরা

তাঁর অভিযোগ রাজ্যে পুলিশের শাসন কায়েম হয়েছে। মত প্রকাশের অধিকারে কণ্ঠরোধ করা হচ্ছে। রাজ্যপাল জানিয়েছেন, তিনি সাংবিধানিক সীমাবদ্ধতার মধ্যেই কথা বলছেন।রাজ্যপাল চিঠিতে বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী একইসঙ্গে সরকার ও সিন্ডিকেট চালাচ্ছেন। এর আগে সিন্ডিকেট নিয়ে অভিযোগ ছিল বিরোধীদের। এবার রাজ্যপাল সেই অভিযএাগ করলেন।রাজ্যপাল চিঠিতে লিখেছেন, আচরণ দেখে মনে হচ্ছে আপনি গুরুদেবের আদর্শচ্যুত হয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রীকে বরীন্দ্রনাথের থেকে শিক্ষা নেওয়ার উচিত বলে মন্তব্য করেছেন রাজ্যপাল। এর আগে কোনওদিন কোনও রাজ্যের রাজ্যপালকে দেখা যায়নি এভাবে কোনও মুখ্যমন্ত্রীকে কুরুচিকর ভাবে আক্রমণ করতে।

 

Related Articles

Back to top button
Close